রবিবার, ১৬ জুন, ২০১৯
আক্কেল চাচার চিঠি (আঞ্চলিক ভাষায় লেখা)
ফায়ার সার্ভিসরে জনপোশাসন পদক দিতি হবে
Published : Tuesday, 9 April, 2019 at 6:49 AM
সরকারি অপিসে সিবা নিতি গেলি কমবেশী হয়রানি হওয়া লাগে। কিচু কিচু জাগায় তলশুড়া যুগাযোগ না কল্লি ফাইল আগোয় না সিবা পাওয়াতো দূরির কতা। কিন্তুক সবার মদ্দি আলাদা ফায়ার সার্ভিস অপিস। কোন জাগায় আগুন লাইগেচে সে খবর যে কেউ দিলিই ফায়ার সার্ভিসির উদ্ধারকর্মীরা জাগায় যাইয়ে হাজির। জীবন বাজি রাইকে তারা মানুসির জান আর মাল বাচানোর চিস্টা করে। ককনো শুনিনি ফায়ার সার্ভিসের কেউ কোনদিন কইয়েচে আগুনি পুইড়ে লোক মরে মরুগগে মালকড়ি না ছাড়লি আগুন লিবোতি যাবো না। বরং উল্টে তারা মানসির জীবন বাচাতি যাইয়ে নিজিগের জীবনই বিসজ্জন দিয়ে দিয়ে দেচ্চে। সিরাম একজন সোহেল রানা। গ্যালো ২৮ মার্চ বনানীর এফআর টাওয়ারে ভয়াবহ আগুন লাগিল। সেই আগুনি ২৬ জন মইরে গিলো আর ৭১ জন আগুনি পুড়ে আহত হইলো। ওইদিন কুরমিটুলা ফায়ার ইস্টিশনের ফায়ারম্যান সোহেল রানা উইচো বাসোই দিয়ে আগুন লিবোনো ও আটকে পড়া  লোক উদ্ধারে কাজ কচ্চিলেন। দালানে আটকে পড়া ৪-৫ লোকরে তিনি উদ্ধার কইরে এক সাতে নিচে লাবানোর সুমায় ডিজিটাল বাসোইডা ওভারলোড দেকাচ্ছিল। বাড়তি ওজন হলি সাধারণত ডিজিটাল বাসোই নিচেয় লাবে না, নিজিনিজি লক হয়ে যায়। বাসোই’র ওজন কুমাতে একপযযায়ে সোহেল রানা নিজিই বাসোই বাইয়ে নিচেয় লাবজিলেন। যেই তিনি বাসোইত্তে নিচেই লাবিলেন অমনি ওজন কুইমে যাওয়াই বাসোইডা নিজি নিজি চালু হইয়ে গিলো। ডিজিটাল বাসোইডা টকাস কইরে নিচের দিকি লাইবে আসায় সোহেল রানার এট্টা পা বাসোই’র মদ্দি ঢুইকে যায়। এ সুমায় তার শরীলির সাতে লাগানো সেফটি বেল্টডা বাসোইতি আটকায়ে যাইয়ে প্যাটে জোরে বাড়ি লাগে। মানুস বাচাতি যাইয়ে মারাত্মক আহত হলি সোহেল রানারে ঢাকা সিএমএসে নিয়ে যাওয়া হয়। স্যানে তার শরীলির অবস্তা খারাপের দিকি যাতি লাগলি গ্যালো ৫ এপ্রিল সিএমএসতে সোহেল রানারে সিঙ্গাপুরি নিয়া যাওয়া হয়। সিঙ্গাপুরি চিকিসসে নিয়া অবস্থায় সোমবার রাত ২টা ১৭ মিনিটি মইরে যান সোহেল রানা। তার মৃত্যুর খবরডা শুনার সাতে সাতে মনডা খারাপ হইয়ে গ্যালো। কতবা বয়স হইলো ভাইপোডার। কয় বচর হইলো ত্রিশ পার কইরেচে। অথচ এই বয়সেই তারে এই দুনিয়া ছাইড়ে চইলে যাতি হলো। দেশ আর দেশের মানসির জন্যি জীবন বিলোয় দিয়া বীর সৈনিক সোহেল রানার পোতি শ্রদ্দা জানাচ্চি। সেই সাতে সরকারের কাচে অনুরোদ কচ্চি সোহেল রানার পরিবারে পাশে দাড়ানোর জন্যি। সরকারের কাচে আরো এট্টা আবদার কচ্চি একনেকে ম্যালা টাকার অনেক বড় বড় পোকল্প পাশ হয় স্যানে ফায়ার সার্ভিসের জন্যি আধুনিক যন্তরপাতি কিনার জন্যি বেশী বরাদ্দ রাকতি হবে। ফায়ার সার্ভিসের য্যানে লোকজন কম স্যানে লোকজন নিয়োগ দিতি হবে যাতে আগুন লাগলি কিম্বা দূরঘটনা ঘটলি সাতে সাতে ঝাপায় পড়তি পারে। আর শুনিচি পৃতিবীর নানান দেশে জুয়ান ছেলেপিলেগের সামরিক টেনিং বাইদ্যতামূলক সিরাম আমাগের দেশের জুয়ান ছেলেপিলেগের ফায়ার সার্ভিসের টেনিং বাইদ্যতামূলক কত্তি হবে। যাতে কইরে তারা দূরঘটনার সুমায় সেলপী না তুইলে হাতে অন্তত এক বালতি পানি নিতি পারে। আর পাবলিক সার্ভিস দিবসে ফায়ার সার্ভিসরে জনপোশাসন পদক দিতি হবে।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft