সোমবার, ১৪ অক্টোবর, ২০১৯
ক্রীড়া সংবাদ
হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন পেলে
ক্রীড়া ডেস্ক :
Published : Tuesday, 9 April, 2019 at 6:00 PM
হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন পেলেচিকিৎসার পর হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন ফুটবল সম্রাট পেলে৷ মূত্রনালিতে সংক্রমণে কারণে অসুস্থ ছিলেন পেলে৷ ফ্রান্সের এক হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন কিংবদন্তি এই ফুটবলার৷
কিডনি ও প্রোস্টেটের সমস্যায় দীর্ঘদিন ধরে ভুগছেন ব্রাজিলের কিংবদন্তি৷ সেই সঙ্গে বার্ধক্যজনিত অসুস্থতাও রয়েছে৷ নতুন করে মূত্রনালির সংক্রমণে অসুস্থ হয়ে পরেন প্রাক্তন ব্রাজিলিয়ন৷ গত বুধবার থেকে ফ্রান্সের এক হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন তিন বারের বিশ্বকাপ জয়ী ফুটবলার৷
চিকিৎসার পর সোমবার অবশ্য পেলেকে ডাক্তাররা ফিট সার্টিফিকেট দিয়েছেন৷ ৭৮ বছরের পেলে পরে এক বিবৃতি পেলে জানিয়েছেন, তিনি এখন সম্পূর্ণ সুস্থ৷ দেশে ফিরে নিজের কাজে ব্যস্ত থাকতে চান৷
উল্লেখ্য, সুইস ঘড়ি সংস্থা হাবলটের বিজ্ঞাপনী প্রচারে দিনকয়েক আগে একটি অনুষ্ঠানে প্যারিসে যোগ দিতে গিয়েছিলেন পেলে। ফ্রান্সের রাজধানী শহর প্যারিসে সুইস ঘড়ি সংস্থার প্রচারানুষ্ঠানে যোগ দিয়ে ফ্রান্সের উদীয়মান ফুটবল তারকা এমবাপের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন ১৯৫৮, ১৯৬২ এবং ১৯৭০ বিশ্বকাপজয়ী ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তি। পেলের পর দ্বিতীয় টিন-এজ ফুটবলার হিসেবে ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপ ফাইনালে গোল করে নজির গড়েন কিলিয়ান এমবাপে। মাত্র ১৯ বছর বয়সে বিশ্বকাপ ফাইনালে গোল করে ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তির সঙ্গে এর আগেও সাক্ষাতের ইচ্ছেপ্রকাশ করেন ফরাসি তারকা। বিজ্ঞাপনী প্রচারের অনুষ্ঠানে গিয়েই অসুস্থ বোধ করায় বুধবার ফুটবল সম্রাটকে ভর্তি করানো হয় প্যারিসের একটি হাসপাতালে। পরে জানা যায় তাঁর মূত্রনালিতে সংক্রমণ ধরা পড়েছে। পরে হাসপাতালেই ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে ওঠেন কিংবদন্তি।
এর আগের মূত্রনালির সংক্রমণের কারণে ২০১৪ সালে দু’সপ্তাহের জন্য সাওপাওলোর হাসপাতালে আইসিইউতে ভর্তি ছিলেন কিংবদন্তি এই ফুটবলার৷



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft