শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২০
ক্রীড়া সংবাদ
এক হাতে মেরে স্টেডিয়ামের বাইরে বল পাঠিয়ে দিলেন ডি ভিলিয়ার্স
ক্রীড়া ডেস্ক :
Published : Thursday, 25 April, 2019 at 7:27 PM
এক হাতে মেরে স্টেডিয়ামের বাইরে বল পাঠিয়ে দিলেন ডি ভিলিয়ার্সবাহারী রকমের শট এবং উইকেটের চারপাশে খেলার সমান দক্ষতার কারণে ভক্তরা তাকে ডাকেন 'মি. ৩৬০' ডিগ্রী নামে। নিয়মিতই নিজের এ নামটির প্রতি সুবিচার করে থাকেন দক্ষিণ আফ্রিকার তারকা ক্রিকেটার এবি ডি ভিলিয়ার্স।
যার সবশেষ উদাহরণ মিললো বুধবার আইপিএলের ম্যাচে। যেখানে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরুর হয়ে কিংস এলেভেন পাঞ্জাবের বিপক্ষে ৩ চার ও ৭ ছয়ের মারে ৪৪ বলে ৮২ রানের তুফান ইনিংস খেলেছেন ডি ভিলিয়ার্স। দলকে ১৭ রানে জিতিয়ে ডি ভিলিয়ার্স পেয়েছেন ম্যাচসেরার পুরষ্কার।
তবে তার ইনিংসের একটি দৃশ্য অভিভূত করেছে সবাইকে। হতবাক বনেচ গেছেন অনেকেই। হবেই না বা কেন? এক হাতে ছক্কা মেরে স্টেডিয়ামের বাইরে বল পাঠিয়ে দেয়া নিশ্চয়ই চাট্টিখানি কথা নয়! সে কাজটিই করে দেখিয়েছেন ডি ভিলিয়ার্স।
ঘটনা ব্যাঙ্গালুরুর ইনিংসের ১৯তম ওভারের। মোহাম্মদ শামীর করা সে ওভারের তৃতীয় ও চতুর্থ বলে ছক্কা হাঁকিয়ে আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গে ডি ভিলিয়ার্স। ওদিকে পরপর দুই বলে ছক্কা হজম করে নিজের ছন্দ খুঁজে পাওয়ার চেষ্টায় ব্যস্ত শামী। তাই তো বাড়তি জোর দিতে পঞ্চম বলটি করে বসেন কোমর সমান উচ্চতার ফুলটস।
এত ওপরের বলে ব্যাট ঘোরানো খুব সহজ কিছু নয়। কিন্তু ডি ভিলিয়ার্সের কাছে কঠিন বলে কিছু নয়। তাই তো কোমর সমান উচ্চতার বলেই ব্যাট ঘোরালেন কিন্তু সরে গেলো চোখ। তবে তার আগেই ব্যাটের 'সুইট স্পট' ঠিকই খুঁজে নিয়েছে বলকে।
তাই তো বল থেকে ডি ভিলিয়ার্সের চোখ সরে গেলেও ব্যাটে লাগার পর সেটির ঠিকানা হয় সোজা মাঠের বাইরে, স্টেডিয়ামের ছাদে। এ ছক্কায় চক্ষু ছানাবড়া হয়ে যায় শামীর, অবাক হয়ে যান ডি ভিলিয়ার্স নিজেও। আর স্কয়ার লেগে থাকা ইউনিভার্স বস ক্রিস গেইল তখন ডি ভিলিয়ার্সকে ইশারা দিতে থাকেন বলটি ছিলো কোমরের নিচেই।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft