রবিবার, ১৬ জুন, ২০১৯
আক্কেল চাচার চিঠি (আঞ্চলিক ভাষায় লেখা)
ওগের কাজডা কি কও দিনি বাপু!
Published : Wednesday, 1 May, 2019 at 6:29 AM
অবলাস্টে বদলানো হচ্চে বিশ্বকাপ ক্রিকেটের জন্যি আমাগের জাতীয় ক্রিকেট দলের জার্সি। সারাদেশের মানসির দাবির মুকি জার্সির হাত আর বুকি লাল রঙ যোগ করা হচ্চে যার ওপরে লিকা থাকপে বাংলাদেশ। জার্সি বদলানোর ব্যাপারডা আইসিসি অনুমোদন দেচে বিলে নিচ্চিত কইরেচেন বাংলাদেশ ক্রিকেট  বোডের পোধান নাজমুল হাসান পাপন।
৩০ মে ইংল্যান্ডের ওভালে  দক্কিন আফ্রিকা আর ইংল্যান্ডের খেলার মদ্দি দিয়ে শুরু হবে বিশ্বকাপ ক্রিকেট ২০১৯। ৯ জুলাই হবে পেত্তম আর ১১ জুলাই হবে দ্বিতীয় সেমিফাইনাল। আর ১৪ জুলাই ক্রিকেটের কুলীন নামের পরিচিত মাঠ লর্ডসে হবে ফাইনাল খেলা। সেই খেলায় অংশ নিতি যাচ্চে আমাদের ক্রিকেট দল। যাওয়ার আগে পরশুদিন ঘটা কইরে খেলোয়াড়গের পরার জার্সি সবার সুমকি আগলা করিল বিসিবি। ব্যাস আর যাবা কনে, জার্সি দেইকেই সাড়া দেশে পইড়ে গেচে হুটোপাটা। কেন হবে না? লাল সবুজ আমাগের দেশের জাতীয় পতাকার পোতিক। লাল সবুজ আমাগের স্বাদীনেতা, ত্রিশ লক্ক শহীদির জীবন দিয়ার স্মৃতি। যে লাল সবুজ আমাগের চেতনার পোতীক হটাস কইরে সেই লাল হারায় গেলো জার্সিত্তে। তাতেও মানুস জানের বুজ দিতি পাইত্তো। কিন্তুক যাগের সাতে লড়াই কইরে আমরা ছিনোয় আনিচি স্বাদীনেতার সূযযো, সেই পাকিস্তানের জার্সি আর আমাগের জার্সি হু বহু একই রকম। শুদু আমাগেরডার বুকির বাও পাশে বিসিবির লোগো আর ওগেরডার বুকির বাও পাশে চানতারা। পেত্তেক দেশের জন্যি দুডো রঙের জার্সি অনুমোদন দেচে আইসিসি। সেই মুতাবেক ঘটা কইরে আমাগের দেশের জন্যি ১৯ টে ডিজাইনের মদ্দিত্তে দুডো জার্সি বাইচে নিলো বিসিবি। তার এট্টা হচ্চে পুরো সবুজ আরাট্টা পুরো লাল। সবুজডায় লাল নেই আর লালডায় সবুজ নেই। সবুজডা মিলে যাচ্চে পাকিস্তানের সাতে আর লালডা মিলে যাচ্চে জিম্বাবুর সাতে। কি অবাক কান্ড, দেকার সাতে সাতে দেশের আম জনতা বুইজে ফেল্লো, কিন্তুক বুইজলো না বিসিবির লোকজন। বিসিবি বস পাপন চাচা জার্সি হাতে ধইরে মাশরাফী চাচার সাতে ফটক তুইল্লো, তকনও তিনি টের পালেন না যে সবুজের বুকি লাল নেই। ফেসবুকি সারাদেশেত্তে পোতিবাদের ঝড় উইটলো। সব মানসির আশা ভরসার পোতীক শেখ হাসিনা মা জননীর সহযোগিতা চাইলো। কাল দুপারে বিশ্বকাপ খেলতি যাওয়ার আগে পোধানমুন্ত্রীর অপিসি দেকা আর দুয়া নিতি গিলো আমাগের ক্রিকেট দলে জাগা পাওয়া খেলোয়াড়রা। স্যানে যাওয়ার পর পোধানমুন্ত্রীর নিদ্দেশে অভিশপ্ত পাকিস্তানের জার্সির নকল জার্সি কাইজে দিয়ে নতুন জার্সি বরাদ্দ হইলো। খবরডা চাউর হতি সারা দেশে খুশীর বন্যে বইয়ে যাচ্চে। যারা তলশুড়া বুজবাজে এই জার্সি কেলেংকারীর সাতে জড়াইলো তারা একন বালিশ চালাচালি খেলার মত দোষ এ ওর ঘাড়ে দেচ্চে।
এই ঘটনার তদন্ত দাবি কত্তিচি। যারা একনো আমাগের মদ্দি ভুকসি মাইরে থাইকে সব কিচু পাকিস্তানের সাতে মিলোয় দিয়ার চিস্টা দেচ্চে, তাগের তলাশ কইরে বাইরো কত্তি হবে। সেই সাতে মুক্কু সুক্কু মানুস হইয়ে এট্টা জিনুস বুজি আসতেচে না, সামান্য এট্টা জার্সির রঙ বদলাতে যদি পোধানমুন্ত্রী তামাত যাতি হয় তালি আর যারা আচে তাগের কাজ কি? তারা কি আচে ইস্টিডিয়ামের ঘাস বাড়লি ঘাস কাটার জন্যি?



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft