মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৯
আন্তর্জাতিক সংবাদ
ভারতের প্রথম সন্ত্রাসী একজন হিন্দু: কমল হাসান
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
Published : Monday, 13 May, 2019 at 4:49 PM
ভারতের প্রথম সন্ত্রাসী একজন হিন্দু: কমল হাসানভারতের প্রখ্যাত অভিনেতা ও হালের রাজনীতিবিদ কমল হাসান বলেছেন, ভারতের প্রথম সন্ত্রাসী ছিলেন একজন হিন্দু, যিনি মহাত্মা গান্ধীর মত মানুষকে হত্যা করেছিলেন। তার নাম নাথুরাম গডসে।
মাক্কাল নিধি মাইয়াম (এমএনএম) দলের এই নেতা রোববার রাতে তামিল নাড়ুর আভ্রাকুরিচি এলাকায় এক নির্বাচনী সভায় বক্তব্য রাখার সময় নিজেকে ‘একজন গর্বিত ভারতীয়’ হিসেবে উল্লেখ করে বলেন, ভারত বহু ধর্ম ও মতের দেশ। এখানে সব ধর্মের মানুষ সমান অধিকার নিশ্চিত করা হয়েছে। যে কারণে আমাদের পতাকায় রয়েছে তিন রঙ।
তামিলনাড়ুর আরাভাকুরিচি বিধানসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচনে প্রার্থী দিয়েছে কমল হাসানের দল মাক্কাল নিধা মাইয়াম। সেখানেই তিনি বলেন, ‘স্বাধীন ভারতে প্রথম সন্ত্রাসী ছিলেন একজন হিন্দু, তার নাম নাথুরাম গডসে। আর সেখান থেকেই সন্ত্রাসের উৎপত্তি।’
তিনি আরো বলেন, এই এলাকায় মুসলিম ভোটারদের কথা মাথায় রেখে আমি একথা বলছি না। গান্ধীর খুনের কথাই এতদিন পরে তুলছি।
তিনি ১৯৪৮ সালে মহান নেতা গান্ধীজীকে হত্যার প্রসঙ্গে বলেন, তিনি এখনও এ হত্যাকাণ্ডের উত্তর খুঁজে ফিরছেন।
তিনি আরো বলেন, তবে ভারতের ভালো মানুসের সংখ্যাই বেশি এবং তারা তেরঙা পতাকাকে উজ্জীবিত রাখতে চায়। আমিও একজন ভালো ভারতীয় এবং গর্ব সহকারে তা বলতে পারি।’
উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে মোদি সরকার ক্ষমতায় আসার পর এবার প্রকাশ্যেই নাথরাম গডসের হয়ে সওয়াল করছে আরএসএস ঘেসা বিজেপির একাংশ। তাদের কাছে নাথুরাম গডসে খুনি নয়, দেশপ্রেমিক। তারা নাথুরাম গডসের নামে মন্দিরও তৈরির চেষ্টা করছে।
উল্লেখ্য, ২০১৮ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি আত্মপ্রকাশ করে কমল হাসানের দল এমএনএম। রাজ্য বিধানসভার একটি আসনের উপনির্বাচনে এবার এমএনএম লড়াই করছে টর্চ চিহ্নে। জোর কদমে দলের প্রার্থীর পক্ষে প্রচারে নেমেছেন কমল হাসান । সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft