বৃহস্পতিবার, ২২ আগস্ট, ২০১৯
দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
১০ লাখ টাকায় বরকত!
সরোয়ার হোসেন :
Published : Thursday, 11 July, 2019 at 6:17 AM
১০ লাখ টাকায় বরকত!গত কোরবানির আগে ‘বরকত’র দাম উঠেছিল চার লাখ ৭০ হাজার টাকা। তা মনোপুত হয়নি পালক আব্দুল মান্নানের। সে কারণে আরো এক বছর অপেক্ষা করেছেন তিনি। পরম যতেœ আরো হৃষ্টপুষ্ট করেছেন বরকতকে। দাম হাকিয়েছেন ১২ লাখ। সামান্য কমে হলেও ছেড়ে দেবেন। না হলে বিকোতে নিয়ে যাবেন ঢাকায়।
‘বরকত’ একটি গরুর নাম। যশোরের মণিরামপুর উপজেলার সাতগাতি আ¤্রঝুটা গ্রামের আব্দুল মান্নান প্রায় আড়াই বছর একে লালন করেছেন কোরবানির বাজারে বিক্রির জন্যে। ‘ওকে কেনার পর আমার পরিবারে বরকত এসেছে বলে ওর নাম দেয়া হয়েছে বরকত’-জানালেন আব্দুল মান্নান। স্থানীয় গোপালপুর বাজারে পেঁয়াজের ব্যবসা আছে। শখেরবশে গরু পোষেন। বিক্রি করে যা লাভ হয় তাতেই খুশি। তবে, বরকতকে নিয়ে তিনি বেশি লাভের স্বপ্ন দেখছেন।
আমেরিকান ব্রাহ্মা জাতের গরুটি যখন কিনেছিলেন তখন তার বয়স ছিল এক বছর চার মাস। আগামী কোরবানির সময় বয়স হবে ৪৭ মাস। ‘প্রায় আড়াই বছরে সন্তান¯েœহে বরকতকে লালন-পালন করেছি’ জানিয়ে আব্দুল মান্নান জানান, ‘আমরা পরিবারের সবাই গরুটির যতœ নেই। তাকে ভূষি, বিচালি আা খৈল ছাড়া অন্যকিছু খাওয়ানো হয় না। রাত ১টা পর্যন্ত তিনবার গামছা দিয়ে শরীর মুছিয়ে দেই। বেশি গরমে গোয়াল ঘরে বৈদ্যুতিক পাখা চালাই। প্রতিদিন দু’বার গোসল করাই। সুস্থ রাখার জন্যে নিয়মিত চিকিৎসা করাই’। বরকতের পেছনে প্রতি মাসে প্রায় ১০ হাজার টাকা খরচ হয় বলে জানান তিনি।  
সাদা রঙের বরকত লম্বায় আট আর উচ্চতায় সাড়ে পাঁচ ফুট। মালিকের ধারণা, ওজন প্রায় ২৫ মণ হবে। গরুটি দেখতে প্রতিদিন দূর-দূরান্ত থেকে শ’ শ’ মানুষের আগমন ঘটছে আব্দুল মান্নানের বাড়িতে।
মা লিলি বেগম জানান, বরকতের বয়স যখন ১৬ মাস তখন খানপুরের মাসুম সরদারের কাছ থেকে ৯২ হাজার টাকায় ওকে কিনেছিলেন মান্নান। গত কোরবানির প্রায় ১৫ দিন আগে থেকে গরুটি দেখার জন্যে প্রতিদিন দু’-তিনশ’ মানুষ তাদের বাড়িতে আসতো জানিয়ে লিলি বেগম বলেন, ‘গভীর রাত পর্যন্ত আমি আর আমার ছেলে মানুষকে গরুটি দেখাতাম। এবারও প্রচুর মানুষ আসছে’।
আব্দুল মান্নানের ছেলে একাদশ শ্রেণির ছাত্র ফয়সাল আহমেদ জানান, ‘গত বছর এর দাম উঠেছিল চার লাখ ৭০ হাজার টাকা। আমরা বিক্রি করিনি। খুলনায় হাটে উঠানোর পর দাম আরো কম বলায় ফিরিয়ে নিয়ে আসি। এবার ১২ লাখ টাকা দাম চাচ্ছি। ১০ লাখের মতো হলে বিক্রি করবো’।
এত টাকায় গরুটি বিক্রি হবে কেন জানতে চাইলে আব্দুল মান্নানের স্ত্রী রহিমা বেগম বলেন, ১৫ বছর আগে একটি দেশি গরু বিক্রি করেছিলাম দু’ লাখ ৮০ হাজার টাকায়। বরকতের তুলনায় তা কিছুই না। এখনতো দামও বেড়েছে। আর মানুষ মাংসের হিসেবে গরু কেনে না, চেহারা দেখে কেনে। সে হিসেবে বরকতের কোনো তুলনাই হয় না’।
বাড়ি থেকে গরুটি বিক্রি করতে না পারলে ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হবে বলে জানালেন মান্নান।



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft