সোমবার, ১৪ অক্টোবর, ২০১৯
সারাদেশ
অতিরিক্ত যানবাহনের চাপে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে ৫০ কি.মি. যানজট
টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি :
Published : Saturday, 10 August, 2019 at 5:11 PM
অতিরিক্ত যানবাহনের চাপে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে ৫০ কি.মি. যানজটঅতিরিক্ত যানবাহনের চাপে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে বঙ্গবন্ধু সেতু থেকে পাকুল্লা পর্যন্ত প্রায় ৫০ কিলোমিটার জুড়ে যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এই ৪০ কিলোমিটারে যানবাহন থেমে থেমে চলছে। এর ফলে দূর পাল্লার যাত্রীদের দুর্ভোগ চরমে উঠেছে।
শনিবার দুপুর পর্যন্ত মহাসড়কের পাকুল্লা, করটিয়া বাইপাস, নগরজলফৈই, রাবনা বাইপাস ও এলেঙ্গায় যানজট দেখা গেছে।
শহিদুল ইসলামে নামের বাসের যাত্রী জানান, তিনি ভোর সাড়ে ৪টায় ঢাকার গাবতলী থেকে গাড়িতে উঠেছেন। এখন দুপুর সাড়ে ১২টা। কিন্তু এখন পর্যন্ত টাঙ্গাইলের সীমানা পার হতে পারেননি। দীর্ঘ দুই ঘণ্টা ধরে নগর জলফৈ বাইপাসেই রয়েছেন।
পাবনাগামী মাইক্রোবাসের চালক জালাল উদ্দিন জানান, ভোর ৫টায় তিনি গাজীপুরের চন্দ্রা থেকে রিজার্ভে যাচ্ছেন। সকাল সাড়ে ৮টায় তিনি টাঙ্গাইল সীমানায় ঢুকেছেন। কিন্তু এখন দুপুর সাড়ে ১২টা। তিনি করটিয়া বাইপাস পার হতে পারেননি।
হাইওয়ে পুলিশের ট্রাফিক পরিদর্শক (টিআই) সার্জেন্ট ইফতেখার নাসির রোকন জানান, এলেঙ্গা থেকে মির্জাপুর পর্যন্ত ধীরগতিতে যানবাহন চলাচল করছে।
টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপার (এসপি) সঞ্জিত কুমার রায় বলেন, গত ৮ তারিখ থেকে আজ ১০ তারিখ পর্যন্ত সেতুর টোল প্লাজা ১২ বার বন্ধ হয়েছে। সেতুর টোল আদায় বন্ধ থাকায় যানজট দীর্ঘ হয়েছে। এছাড়াও সেতুর পশ্চিম অংশের সিরাজগঞ্জ জেলার নলকা ব্রিজ, হাটিকুমরুল আর কড্ডা মোড় এলাকায় টানতে না পারার কারণে এ যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে। আজ বিকেলের মধ্যে এ মহাসড়কের যান চলাচল স্বাভাবিক হবে বলে আশা করা হচ্ছে।
তিনি আরো জানান, যানজট নিরসনে টাঙ্গাইল জেলা পুলিশের ৬৭০ জন পোশাকধারী পুলিশ সদস্যের পাশাপাশি সাদা পোশাকের পুলিশ, র‌্যাব ও ১৯০ জন আনসার সদস্য কাজ করছে। এ যানজটের আরও একটি কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে ফিটনেসবিহীন যানবাহন। ঈদকে সামনে রেখে গাড়িগুলো সড়কে নেমে আসাসহ যত্রতত্র নষ্ট হয়ে সৃষ্টি করছে যানজট।
এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় বঙ্গবন্ধু সেতু দিয়ে এ যাবত কালের সর্বোচ্চ সংখ্যক যানবাহন পারাপার হয়েছে বলে জানিয়েছে সেতু কর্তৃপক্ষ।
বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষের নির্বাহী প্রকৌশলী আহসানুল কবির জানান, গতকাল ভোর ছয়টা থেকে শনিবার ভোর ছয়টা পর্যন্ত ২৪ ঘন্টায় ৩৬ হাজার ৩৩৭টি যানবাহন পারাপার হয়েছে। যা এ যাবত কালের সর্বোচ্চ।



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft