বৃহস্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯
আন্তর্জাতিক সংবাদ
চীনকে ঠেকাতে সেনকাকুতে বিশেষ পুলিশ
পূর্ব চীন সাগরে শক্তি বাড়াচ্ছে জাপান
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
Published : Tuesday, 3 September, 2019 at 9:09 PM
পূর্ব চীন সাগরে শক্তি বাড়াচ্ছে জাপানপূর্ব চীন সাগরে সামরিক শক্তি বাড়াচ্ছে ‘দ্বীপদেশ’ জাপান। প্রধানত চীন ও উত্তর কোরিয়ার ক্রমবর্ধমান প্রভাব ও হুমকি মাথায় রেখেই সামরিক উপস্থিতি নিশ্চিত করছে টোকিও।
এই অঞ্চলে ইতিমধ্যে বিমান বাহিনীর একটি বহর মোতায়েন করা হয়েছে। রোববার এএফপির খবরে বলা হয়েছে, বিতর্কিত দ্বীপপুঞ্জ সেনকাকুতে এবার বিশেষ পুলিশ বাহিনী পাঠানোর পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে জাপান।
কড়া নজরদারির লক্ষ্যে চলতি বছরের শেষের দিকেই বিশেষ এই বাহিনী মোতায়েন করা হবে। টহলের জন্য দেয়া হবে সাবমেরিন, অত্যাধুনিক মারণাস্ত্র, এমনকি হেলিকপ্টারও।
এই লক্ষ্যে আগামী বছর সামরিক বাজেট বাড়িয়ে ৫০.৩ বিলিয়ন ডলার করার পরিকল্পনা রয়েছে দেশটির। বিমান বাহিনীর জন্য যুদ্ধবিমান ও ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির অর্থায়নে এই অর্থ ব্যয় করা হবে।
সেই সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে প্রতি বছর যৌথ সামরিক মহড়াও আয়োজন করছে। উত্তর প্রশান্ত মহাসাগরে ছোট-বড় ৬ হাজার ৮৫২টি দ্বীপের সমষ্টি জাপান।
এর মধ্যে দূরবর্তী ও প্রত্যন্ত অঞ্চলের বেশ কিছু দ্বীপ নিয়ে পার্শ্ববর্তী দেশগুলোর সঙ্গে দ্বন্দ্ব রয়েছে। এর মধ্যে চীন, উত্তর কোরিয়া ও দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে দ্বন্দ্বের কেন্দ্রে রয়েছে সেনকাকু (চীনাদের কাছে দিয়াইউ বলে পরিচিত)।
দ্রুত পরিবর্তনশীল নিরাপত্তা পরিবেশের জবাবে জাপান তার সামরিক শক্তি বৃদ্ধির প্রয়োজন তীব্রভাবে অনুভব করছে। সম্প্রতি জাপানের শীর্ষ এক কূটনীতিক বলেন, টোকিও কেবল ওয়াশিংটনকে খুশি করার জন্য তার পেশিশক্তি বাড়াচ্ছে তা নয়। গত ১০ বছরে চীন ও উত্তর কোরিয়া আমাদের জন্য বড় নিরাপত্তা উদ্বেগ তৈরি করেছে।
২০১৩ সালের পর থেকে উত্তর কোরিয়া প্রায় ৬০টি ক্ষেপণাস্ত্র ও ৩টি পরমাণু বোমার পরীক্ষা চালিয়েছে। অন্যদিকে ২০১৭ সালের মধ্যে চীনের প্রতিরক্ষা ব্যয় মোটামুটি এক-তৃতীয়াংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। জাপানের বেড়েছে ৩ শতাংশের কম। জাপানের জলসীমায় বিশেষ করে সেনকাকু দ্বীপের চারপাশে ও পূর্ব চীন সাগরে চীনা বিমান ও জাহাজের ঘন ঘন অনুপ্রবেশ ঘটছে।
এরই পরিপ্রেক্ষিতে এখন জাপান প্রতিরক্ষা খাতে তার ব্যয় বাড়াচ্ছে। আগামী ৫ বছর দেশটি এই খাতে বছরে প্রায় ৫০ বিলিয়ন ডলার করে মোট আড়াইশ’ বিলিয়ন ডলার ব্যয়ের পরিকল্পনা নিয়েছে। জাপানের সংবাদমাধ্যম এনএইচকে জানিয়েছে, পূর্ব চীন সাগরে ‘বিশেষ পুলিশ’ পাঠানো জাপানের ‘নতুন প্রতিরক্ষানীতির’ অন্যতম পদক্ষেপ। জাপানি পুলিশের ক্ষেত্রেও এটা নতুন ঘটনা। পরিকল্পনা এগিয়ে নিতে সরকারের কাছে বাজেট বরাদ্দের আবেদন করেছে জাপান পুলিশ।



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft