মঙ্গলবার, ১৪ জুলাই, ২০২০
দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
অধ্যাপক রুহুল আমিন প্রামাণিক স্যার
‘জয় বাংলা’ স্লোগানে সেদিনের মালদহ শহর সচকিত হয়ে ওঠে
ডাঃ মোঃ হাফিজুর রহমান (পান্না), রাজশাহী ব্যুরো :
Published : Saturday, 25 January, 2020 at 7:51 PM
‘জয় বাংলা’ স্লোগানে সেদিনের মালদহ শহর সচকিত হয়ে ওঠেপ্রশ্ন : শুনেছি মালদহ এবং মুর্শিদাবাদ মুসলিম প্রধান এলাকা। এ সব এলাকায় জনগণকে বোঝাতে কোন সভা সমাবেশ বা প্রচারের কোন ব্যবস্থা কী আপনাদের করতে হয়েছিল?
অধ্যাপক রুহুল আমিন প্রামাণিক স্যার : মালদহতে তেমন একটা সভা সমাবেশ আমরা করেনি। তৎকালীন ভারতীয় কমিউনিষ্ট পার্টির সাধারণ সম্পাদক এস.এ. দাঙ্গে মালদহে আসলে তাঁর সঙ্গে একটি সভায় মিলিত হবার জন্য পুরাটুলি ক্যাম্পের আমরা মুক্তিযোদ্ধরা মালদহর রাাজপথে একটি মিছিল সহকারে টাউন হলে দিকে অগ্রসর হয়েছিলাম। আমরা সংখ্যায় খুব বেশী ছিলাম না। কিন্ত তারপরও আমাদের ‘জয় বাংলা’ স্লোগানের গানকে সেদিনের মালদহ শহর সচকিত হয়ে ওঠে। রাস্তার দু’ পাশের সাধারণ মানুষ দাঁড়িয়ে যায়। হাত নেড়ে আমাদের স্বাগতম জনায়। পারতপক্ষে ক্যাম্প ছেড়ে আমরা বের হতাম না।
অবশ্য মিছিলটির পেছনে মালদহের সর্বজন শ্রেদ্ধেয় রমেন মিত্র, মালদহ বিধান সভার সবচেয়ে জনপ্রিয় সংসদ বিমলদা, শ্রেমিকনেতা সিদ্দিকদা, যুবনেতা ইন্দ্রজিৎ সহ আরো অনেকে ছিলেন। সেদিন টাউন হলের সভায় মহাকবি ইকবালের লেখা এবং স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের কর্মকর্তা আনোয়ারুল আবেদীন টুলুর লেখা দু’টি গণসংঙ্গীত সহযোদ্ধাদের উৎসাহে বন্ধু ইব্রাহিম ও আমাকে গাইতে হয়েছিল। তবে পরে মুর্শিদাবাদের ভগমান গোলায়, আখেরীগঞ্জ ও লালগোলায় বেশ কয়েকটা জনসভা আমাদের করতে হয়।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft