শিরোনাম: নারী-শিশু নির্যাতনকারীদের চরম দণ্ড চায় ১৪ দল       ১৭ মার্চ থেকে ডাকঘর সঞ্চয়ে সুদ আগের মতো : অর্থমন্ত্রী       ঢাকার মেয়রদের শপথ গ্রহণের তারিখ ঘোষণা       মাদক মামলায় ক্যাসিনো খালেদ বললেন, ‘আমি নির্দোষ’       ‘ভারতে সহিংসতা বন্ধে বিশ্ব সম্প্রদায়কে এখনই ব্যবস্থা নিতে হবে’       মুজিববর্ষে মোদি ঢাকায় এলে বঙ্গবন্ধুকে অসম্মান করা হবে : ভিপি নুর       জ্বলছে দিল্লি : শান্তির ডাক মমতার       পাপিয়ার অবৈধ সম্পদের বিষয়ে অনুসন্ধান করবে দুদক       ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র কার্যক্রমে রাশিয়ার সমর্থন, নিষেধাজ্ঞা যুক্তরাষ্ট্রের       স্থলবন্দরে ১৪টি দুর্নীতির উৎস চিহ্নিত      
সত্যি মিত্যের গল্প!
Published : Friday, 18 October, 2019 at 6:46 AM
এক গিরামে দুডো জুমকা ছাবাল ছিলো। একজনের নাম সত্যি, একজনের নাম মিত্যে। সত্যি ছিলো সত্যির প্রতীক, আর মিত্যে ছিলো মিত্যের প্রতীক। হটাস কইরে তাগের দেইকে আলাদা করা খুব মুশকিল ছিলো। সে জন্যি গিরামবাসী মিলে এট্টা বুদ্দি বাইরো করিল। সত্যির জন্যি এক রঙের জামা বানানো হলো, আর মিত্যের জন্যি আরাক রঙের জামা বানালো। গিরামে যকন উরা ঘুইরে বেড়াতো স¹লি জামা দেইকে চিনতো কিডা সত্যি কিডা মিত্যে। জামার কারনে মিত্যেরে চিনে ফেলায় মিত্যের মনডা খুব খারাপ হইয়ে গ্যালো। কি কইরে গিরামবাসী আর সত্যিরে পাড়ো করা যায় সেই বুদ্দি আটতি লাইগলো। একদিন জঙ্গলের কান্দায় সুন্দর এট্টা কুয়ো দেকতি পাইয়ে বুদ্দি পাতায় ফেললো।  সত্যিরে পটায়ে নিয়ে আইসলো কুয়োর কাচে। তারপর কলে স¹লি তোরে ভালবাসে আর আমারে কেউ ভালবাসে না বিলে মনে বড্ড দুক্কু। তাই ভাবিচি একসাথে কুয়োয় উইলে চ্যান কইরে উইটে তোর মতো ভাল হইয়ে যাবো। আর কোনদিন খারাপ কিচু করবোনা।
মিত্যের এ কতায় সত্যি ঘট কচুর মতো অল্প জালে আলোয় গ্যালো। মনে কইল্লো যাক এতোদিনি হারামজাদার মনে সুমতি আইয়েচে। তাই সে মিত্যের সাতে কুয়োয় লাবদি রাজী হইলো। দুইজনে আলাদা জাগায় জামা খুইলে কুয়োয় লাইবে পইড়লো চ্যান কত্তি। ঠান্ডা টলটলে পানিতি সত্যি মনের সুকি ডুবোতি লাইগলো কোনদিকি খিয়াল না দিয়ে। হটাস ডুব মাইরে উটে দেকে কুয়োর মদ্দি মিত্যে নেই। আশপাশ তাগায়ে তারে কোনটোয় না পাইয়ে ওপরে উইটে দেকে মিত্যে তার জামা পইরে চইলে গেচে। একন সে কি করবে বুইজে উটতি না পাইরে আপাতক মিত্যের জামাডা গায় দিয়ে গিরামের দিকি গ্যালো। তার আশা ছিলো গিরামবাসীরে বুজোয় কলি তারা বুজদি পারবে। সেই ভাইবে গিরামে ঢুইকে যার কাচে যাইয়ে সে এই কতাডা কতি গ্যালো, স¹লি দূচ্ছেই কইরে খেদায় দেলে। কারো কাচে জাগা না পাইয়ে মনের দুক্কি সেই বনের কান্দায় আইসে কুয়োর মদ্দি ঝাপ দেলে। সেদিনতে সত্যির পুষাক পরা মিত্যে থাইকে গ্যালো সবার মদ্দি।
ইতি-
অভাগা আক্কেল চাচা
০১৭২৮৮৭১০০৩




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft