শিরোনাম: ‘মাদকসেবীরা সরকারি চাকরি পাবে না’       সরকার আরো বেশি দানবীয় রূপ ধারণ করেছে : ফখরুল       ইরানের সঙ্গে যুদ্ধে জড়ালে ইসরায়েলের সঙ্গ ছাড়বে যুক্তরাষ্ট্র!       উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণে শিক্ষার্থীদের এগিয়ে আসতে হবে : এলজিআরডিমন্ত্রী       জঙ্গিবাদ মোকাবিলায় সতর্কভাবে সংবাদ প্রকাশের আহ্বান মনিরুলের       ইরানে করোনাভাইরাসে ৫ জনের মৃত্যু       স্বাধীনতার গৌরব থেকে বামপন্থীদের বাদ দেয়া যাবে না : মেনন       ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ‘যত গর্জে তত বর্ষে না’       কচুরিপানা নিয়ে গবেষণা চলছে : বাণিজ্যমন্ত্রী       মেয়ে শিশু অনেক প্রতিবন্ধকতার মধ্য দিয়ে বেড়ে ওঠে : শিক্ষামন্ত্রী      
বিপিএলের নতুন চ্যাম্পিয়ন রাজশাহী
ক্রীড়া ডেস্ক :
Published : Saturday, 18 January, 2020 at 4:36 PM
বিপিএলের নতুন চ্যাম্পিয়ন রাজশাহীবিপিএল পেল নতুন চ্যাম্পিয়ন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শততম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে বিপিএলের এবারের আসরটি আয়োজন করা হয়। এই বিশেষ বিপিএল দিয়েই বিপিএলে দেখা মিললো নতুন চ্যাম্পিয়নদের। জমজমাট ফাইনালের মঞ্চে মুশফিকের খুলনা টাইগার্সকে ২১ রানে হারিয়ে সপ্তম আসরের শিরোপা নিশ্চিত করলো রাজশাহী কিংস। ২০১৬-১৭ মৌসুমে রাজশাহী কিংস নামে রানার্স আপ হয়েছিল দলটি।
শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস হেরে শুরুতে ব্যাট করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেটে ১৭০ রান সংগ্রহ করেছে রাজশাহী রয়্যালস। জবাবে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪৯ রানেই থামে মুশফিকের খুলনা টাইগার্স। এতে ২১ রানে জিতে রাজশাহীর ঘরে উঠে বিপিএলের শিরোপা।
গেল ছয় আসরের মধ্যে সবচেয়ে তিনবার শিরোপা জিতে ঢাকা। ঢাকা গ্লাডিয়েটর্স নামে দু’বার ও একবার ঢাকা ডায়নামাইটস নামে। দু’বার শিরোপার স্বাদ নেয় কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ও একবার শিরোপা জিতে রংপুর রাইডার্স।
মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে রাজশাহী ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ১৪ রানে প্রথম উইকেট হারায়। আমিরের বলে মিরাজের দুর্দান্ত ক্যাচে ফিরে যান ওপেনার আফিফ হোসেন। ৮ বলে ১০ রান করেন তিনি। এরপর ৪৯ রানের জুটি গড়েন ইরফান শুক্কুর ও লিটন দাস।
বিপিএলে দারুণ ফর্মে থাকলেও ফাইনাল ম্যাচে ভালো কিছু করতে পারেননি লিটন। ২৮ বলে ২৫ করে দলীয় ৬৩ রানে বিদায় নেন তিনি। এরপর শোয়েব মালিক নেমে ১৩ বলে ৯ রান করে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন।
অন্য প্রান্তের ব্যাটসম্যানরা সুবিধা না করতে পারলেও দারুণ খেলছিলেন ইরফান শুক্কুর। ৩০ বলে ব্যক্তিগত অর্ধশত পূরণ করার পর ইনিংসকে বড় করতে পারেননি তিনি। ব্যক্তিগত ৫২ রানে শফিউলের হাতে ক্যাচ হয়ে ফেরেন তিনি। পরে রাসেল ও নওয়াজ ৭১ রানের জুটি গড়ে অপরাজিত থাকেন।
খুলনার বোলারদের মধ্যে মোহাম্মদ আমির ২টি, ফ্রাইলিঙ্ক ১টি ও শহীদুল ১টি করে উইকেট নেন।
১৭১ রানের জবাবে খুলনা ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই দুই ওপেনারকে হারায়। দলীয় শূন্য রানে ফিরে যান শান্ত। দলীয় ১১ রানে বিদায় নেন অপর ওপেনার মিরাজ। এরপর শামসুর ও রুশোর ব্যাটে ঘুরে দাঁড়ায় খুলনা। দুজনে ৭৪ রানের জুটি গড়েন। দলীয় ৮৫ রানে এই জুটি ভাঙেন মোহাম্মদ নওয়াজ।
১৪তম ওভারে শামসুর ও নাজিবউল্লাহকে ফিরিয়ে বড় ধাক্কা দেন রাব্বী। খুলনা এই ধাক্কা আর সামলে উঠতে পারেনি। মুশফিককে নিয়ে ভরসা থাকলেও ১৫ বলে ২১ করে ফিরে যান তিনি।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft