শিরোনাম: ‘সাজা কমে আসা কয়েদিদের মুক্তির বিষয়ে আলোচনা চলছে’       ‘বিএনপি যেকোনও পরিস্থিতিতেই ফায়দা লোটায় লিপ্ত থাকে’       ঠিকঠাক জবাব দিতে পারি না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী       মৃত ব্যক্তির শরীর থেকে করোনা ছড়ায় না : জাফরুল্লাহ       লকডাউনের পর আর্থিক উন্নতির জন্য অ্যাডভাইজারি বোর্ড গঠন মমতার       করোনা মোকাবেলায় ৫ হাজার কর্মহীন পরিবাররের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ       যশোরে চালু হচ্ছে টেলিমেডিসিন সেবা       খাজুরার প্রেমচারায় ৫ শতাধিক দুঃস্থদের মাঝে খাবার বিতরণ       লোহাগড়ায় পৌর বিএনপির উদ্যোগে কর্মজীবিদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ       বেনাপোলে ভারত থেকে ফেরা ৪৪ যাত্রী কোয়ারেন্টাইনে      
ইরান সীমান্তে মার্কিন যুদ্ধবিমানকে বিভ্রান্তিতে ফেলছে রাশিয়া
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
Published : Tuesday, 21 January, 2020 at 8:25 PM
ইরান সীমান্তে মার্কিন যুদ্ধবিমানকে বিভ্রান্তিতে ফেলছে রাশিয়াইরান সীমান্তে মার্কিন যুদ্ধবিমানকে কোনোমতেই স্বস্তি দিচ্ছে না রাশিয়া। বিভিন্ন ধরনের আধুনিক সরঞ্জাম ব্যবহার করে মার্কিন যুদ্ধবিমানগুলোর জিপিএস সিস্টেম (নির্দিষ্ট স্থান খুঁজে পাওয়ার ব্যবস্থা) অকেজো করে দিচ্ছে রুশ সামরিকবাহিনী। এতে নির্দিষ্ট লক্ষ্যে কোনো হামলা চালাতে পারছে না যুক্তরাষ্ট্র।
মার্কিন ম্যাগাজিন দ্য ন্যাশনাল ইন্টারেস্ট সম্প্রতি একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। ওই প্রতিবেদনে যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধবিমানের অসহায়ত্বের বিষয়টি উঠে এসেছে। সেখানে বলা হয়, রাশিয়ার জ্যামিং (জিপিএস সিস্টেম অকেজো করার ব্যবস্থা) সরঞ্জামাদি মার্কিন যুদ্ধবিমানগুলোর জন্য ভীতির কারণ হয়ে উঠেছে।
শুধু ইরান সীমান্তে নয়, পুরো মধ্যপ্রাচ্যেই মার্কিন যুদ্ধবিমানের যোগাযোগ ব্যবস্থায় প্রভাব ফেলছে রাশিয়া। এর মাধ্যমে রুশ সামরিকবাহিনী তাদের সক্ষমতাও পরীক্ষা করছে। এর মাধ্যমে মার্কিন যুদ্ধবিমানের বিরুদ্ধে তাদের সরঞ্জাম কেমন কার্যকর সেটি বেশ ভালোভাবেই বুঝতে পারছে তারা।
এর আগে গত বছরের জুনে ইসরায়েলি সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইসরায়েল এক প্রতিবেদনে জানায়, গত বসন্ত থেকে মধ্যপ্রাচ্যে প্রবেশ করার পরই পাইলটরা লক্ষ্য করছেন- জিপিএস সিস্টেম ভুল তথ্য দিচ্ছে। এমনকি কোনো কোনো সময় এটি কাজই বন্ধ করে দেয়।
মার্কিন যুদ্ধবিমানের পাশাপাশি ইউরোপের অনেক দেশের যুদ্ধবিমানের বিরুদ্ধেও জিপিএস অকেজো করার কার্যক্রম পরীক্ষা করেছে রাশিয়া। এতে রুশ সামরিকবাহিনী সফলই হয়েছে।
এমন পরিস্থিতিতে বিশ্লেষকরা বলছেন, রাশিয়া যদি এই ব্যবস্থা কার্যকর করে তাহলে কোনোদিনই ইরানের ভেতর নির্দিষ্ট লক্ষ্যে আঘাত হানতে পারবে না মার্কিন যুদ্ধবিমান। এমনকি কোনো দেশের যুদ্ধবিমানই হামলা চালাতে পারবে না। যুদ্ধবিমানের পাইলটদের কাছে মনে হবে, তারা ঠিক জায়গায় আঘাত হেনেছে। কিন্তু বাস্তবে সেটি গিয়ে পড়বে অন্য জায়গায়।





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft