আজ মঙ্গলবার, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ২১ নভেম্বর ২০১৭ খ্রিস্টাব্দ
শিরোনাম: সশস্ত্র বাহিনী দিবস আজ       শীতে ত্বকের যত্নে করণীয়       সৌদিতে ২৪ হাজার অবৈধ বিদেশি আটক, আতঙ্কে বাংলাদেশিরা       অভিনয়কে বিদায়, হজে যাবেন অপু       স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর আশ্বাসে আমাদের আস্থা       সুন্দরবন উপকূলে চিংড়ির পোনা ও কাঁকড়া আহরণ       পুরুষরাও যৌন নির্যাতনের শিকার হন : রাধিকা       দীপিকার মাথা ১০ কোটি রুপি ঘোষণা বিজেপি নেতার        পুতিন আর ভোটে লড়বেন না       বর্তমান সরকার তারেক রহমানের বিরুদ্ধে নীল নকশা তৈরি করেছে : দুলু      
সমাপনীতেও জনস্রোত
জনমনে ব্যাপক সাড়া জাগালো উন্নয়ন মেলা
মানুষের জানার আগ্রহ প্রতিষ্ঠা হয়েছে : জেলা প্রশাসক
এস এম আরিফ :
Published : Thursday, 12 January, 2017 at 12:26 AM, Update: 12.01.2017 1:16:26 AM
জনমনে ব্যাপক সাড়া জাগালো উন্নয়ন মেলাশেষ হলো টাউন হল ময়দানে যশোর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে অনুষ্ঠিত তিন দিনব্যাপী উন্নয়ন মেলা। জমজমাট আয়োজন আর সাধারণ মানুষের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে জনতার মেলায় পরিণত হয় উন্নয়ন মেলা। ২০২১ সালের মধ্যে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত মধ্যম আয়ের এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে শেখ হাসিনা উদ্ভাবিত একটি বাড়ি একটি খামার, কমিউনিটি ক্লিনিক, নারীর ক্ষমতায়ন, সবার জন্য বাসস্থান, শিক্ষা সহায়তা, ডিজিটাল বাংলাদেশ, পরিবেশ সুরক্ষা, বিনিয়োগ বিকাশ, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি, ঘরে ঘরে বিদ্যুত-এই ১০টি কর্মসূচিকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিয়ে বাস্তবায়ন করছে সরকার। এ সব উদ্যোগকে শেখ হাসিনা বিশেষ উদ্যোগ বলে অভিহিত করা হচ্ছে। সকল উদ্যোগকে জনগণের সামনে তুলে ধরতেই ৯-১১ জানুয়ারি দেশব্যাপী আয়োজন করা হয় উন্নয়ন মেলার।
মেলায় আগত অনেকের কথা-অপরিচিত নামের কারণে প্রথমে একটু খটকা লাগলেও দেখার পরে এ মেলাটি ব্যাপক সাড়া ফেলেছে মানুষের কাছে। সেবা গ্রহণে নিত্য হয়রানী আর তথ্য গোপনের চিরাচরিত প্রথা ভেঙ্গে জনগণের সামনে সেবার ঝাঁপি উন্মোচন এই প্রথম অবলোকন করলো সাধারণ মানুষ। মানুষের পদচারণার মুখরিত এ আয়োজন যেন এ কথায় বলতে চাইলো তথ্য অবমুক্তি যেমন সুশাসন প্রতিষ্ঠা করে তেমনি উন্নয়নে জনসম্পৃক্তি বাড়ায়। তাইতো মেলার আয়োজক যশোর জেলা প্রশাসকের কাছে হাজারো মানুষের আকুতি-মেলার সময় আরো কয়েকদিন  বাড়ানো হোক।
সন্ধ্যায় সমাপনী অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে এমনটাই বললেন যশোর জেলা প্রশাসক ড. হুমায়ুন কবীর। তিনি বলেন মানুষের জানার আগ্রহ প্রবল। সেই আগ্রহকে প্রতিষ্ঠা করেছে উন্নয়ন মেলা। জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে যাওয়া সেবা আর উন্নয়ন কর্মকান্ড সর্ম্পকে জনগণকে জানাতেই এই আয়োজন। এ সময় তিনি সকল সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানকে মেলার তিন দিনের মতো করে জনগণকে কম সময়ে কম খরচে হয়রানি মুক্ত সেবা প্রদানের আহবান জানান।
সমাপনী অনুষ্ঠানে আলোচক হিসাবে উপস্থিত ছিলেন যশোর জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আহমেদ কবীর, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক)  পারভেজ হাসান এবং বিশিষ্ট সাংষ্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব হারুন অর রশীদ।
আলোচনা শেষে বিভিন্ন ক্যাটিগরিতে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার ও স্মারক তুলে দেন যশোর জেলা প্রশাসক।
উন্নয়ন মেলায় প্রদর্শনী ক্যাটাগরিতে শ্রেষ্ঠ স্টল ১ম বাংলাদেশ বিমান বাহিনী ঘাঁটি বীরশ্রেষ্ঠ মতিউর রহমান, ২য় ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান, ৩য় স্থানীয় সরকার ও প্রকৌশল অধিদপ্তর। উন্নয়ন কর্মকান্ড ক্যাটাগরিতে শ্রেষ্ঠ স্টল ১ম শেখ হাসিনা প্যাভিলিয়ন, ২য় কৃষি মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ অফিস সমূহ, ৩য় বাংলাদেশ রেলওয়ে। সাজসজ্জা ক্যাটাগরিতে শ্রেষ্ঠ স্টল ১ম বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, ২য় বাংলাদেশ রাজস্ব বোর্ড এর আওতাধীন অফিস সমূহ, ৩য় জেলা পরিষদ, যশোর।
নৈতিক শিক্ষার অভাবই জঙ্গীবাদের অন্যতম কারণ বিষয়ে বিতর্ক প্রতিযোগতায় চ্যাম্পিয়ন যশোর জিলা স্কুল, রানার্স আপ যশোর সরকারি উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়। চ্যাম্পিয়ন যশোর জিলা স্কুলের পক্ষে অশেষ লস্কর নেতৃত্বে বিতর্কে অংশ নেন বর্ণ সাহা এবং মুশফিক হাসান। রানার্স আপ শোর সরকারি উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ের পক্ষে ফরজানা আফরোজ ঊর্মির নেতৃত্বে বিতর্কে অংশ নেন সাদিকা আফরিন এবং উম্মে ইফফাত জাহান। যশোর জিলা স্কুলের দলনেতা অশেষ লস্কর শ্রেষ্ঠ বক্তা নির্বাচিত হন।
উপস্থিত বক্তব্য প্রতিযোগিতায় ১ম স্থান অর্জন করেন যশোর শিক্ষা বোর্ড স্কুল এন্ড কলেজের সুমাইয়া হাসান, ২য় একই প্রতিষ্ঠানের শিহাবুজ্জামান এবং ৩য় যশোর সরকারি উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ের সোহানা আফসানা প্রমি। কুইজ প্রতিযোগিতায় ১ম হন যশোর জিলা স্কুলের অশেষ লস্কর, ২য় একই প্রতিষ্ঠানের শাহরিয়ার হোসেন এবং ৩য় শিক্ষা বোর্ড স্কুল এন্ড কলেজের সাদিয়া আফরিন। বিশেষ কৃতজ্ঞতা স্মারক প্রদান করা হয় মাইকেল মধুসূদন ডিবেট ফেডারেশনকে। এছাড়া উন্নয়ন মেলায় অংশগ্রহণকারী প্রতিটি প্রতিষ্ঠানকে প্রশংসাসূচক সনদ প্রদান করা হয়।
মেলা মঞ্চে প্রতিদিন ছিল স্থানীয় বাউলদের পরিবেশনা। সমাপনী দিনে সঙ্গীত পরিবেশন করে সম্মিলিত সাংষ্কৃতিক জোটভূক্ত সংগঠনের শিল্পীরা। অনুষ্ঠানের শেষপর্বে উন্নয়ন ইস্যু বিষয়ক পটগান পরিবেশন করেন শেকড় যশোরের শিল্পীরা।
সবশেষে দীপংকর দাস রতনের রচনা এবং রায়হান সিদ্দিক ময়নার নির্দেশনায় তীর্যক যশোর মঞ্চায়ন করে নাটক শেখ হাসিনার দর্শন সব মানুষের উন্নয়ন ; উন্নয়নের গণতন্ত্র শেখ হাসিনার মূলমন্ত্র।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft