রবিবার, ১৩ জুন, ২০২১
দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
গর্ভকালীন ফ্রি সেবা নিতে টাকা দিতে হয়!
গনেশ পাল, মোরেলগঞ্জ (বাগেরহাট)
Published : Tuesday, 3 November, 2020 at 1:11 PM
গর্ভকালীন ফ্রি সেবা নিতে টাকা দিতে হয়!বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জের জিউধরা ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রে গর্ভকালীন সেবা কার্ড নিতে চিকিৎসককে নগদ টাকা দিতে হয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই কেন্দ্রের এফডব্লিউভি (পরিবার কল্যাণ পরিদর্শিক) শাহনাজ বেগমের বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ তুলেছেন সেবা গ্রহণকারী আট নারী।
অভিযোগকারীলা হলেন ডুমুরিয়া গ্রামের সুমি আক্তার (২২), ডেউয়াতলা গ্রামের লিমা আক্তার (৩৩), নূরজাহান (৩০), ঝর্ণা বেগম (৩৮), সুপর্ণা (৩০), রিপা মৃধা (৩২), প্রিয়াংকা শীল (৩৪) এবং শনিরজোড় গ্রামের সেলিনা বেগম (৩২)। এসব নারী গর্ভকালীন সেবা গ্রহণের জন্যে কার্ড পেতে প্রত্যেকে এফপিআই শাহনাজ বেগমেকে দুশ’ টাকা থেকে পাঁচশ’ টাকা পর্যন্ত দিতে বাধ্য হয়েছেন। গত ২৫ অক্টোবর এই টাকা লেনদেনের ঘটনা ঘটে।
পরে ওই টাকা ফেরত দেয়ার উদ্দেশ্যে স্থানীয় এক ইউপি মেম্বারের কাছে জমা করা হলেও সুবিধাভোগীরা এখনো পর্যন্ত তা পাননি। তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করে শাহনাজ বেগম বলেন, কয়েকজন সেবা গ্রহিতার সাথে ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। তার সমাধানও হয়ে গেছে।
এ সম্পর্কে ওই কেন্দ্রের প্রধান উপসহকারী মেডিকেল অফিসার ডা. মো. ইকবাল হোসেন বলেন, ‘কয়েকজন সুবিধাভোগীর নিকট থেকে টাকা গ্রহণ ও তা ফেরত দেয়ার প্রক্রিয়া চলছে বলে শুনেছি’।
এ বিষয়ে উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. দিলদার হোসেন বলেন, ‘গর্ভবতী মায়েদের সেবাকার্ডের বিনিময়ে টাকা নেয়ার কথা শুনেছি। তবে কেউ এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ করেনি। বিষয়টি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেয়া হবে’।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft