মঙ্গলবার, ২০ এপ্রিল, ২০২১
ক্রীড়া সংবাদ
নিষিদ্ধ হতে পারে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম
ক্রীড়া ডেস্ক:
Published : Monday, 9 November, 2020 at 10:31 AM
নিষিদ্ধ হতে পারে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামফুটবলের অনুকূল পরিবেশ না থাকায় আন্তর্জাতিক ম্যাচ আয়োজনে নিষিদ্ধ হতে পারে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম। অথচ এই মাঠে খেলেছেন মেসি, জিদান থেকে শুরু করে অনেক মহা তারকারা। বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি কাজী সালাহউদ্দীন এমন শঙ্কার কথা জানিয়েছেন। বাফুফে ভবনে এক সংবাদ সম্মেলেন তিনি বলেন, যখন তখন ফিফা-এএফসি এটা বন্ধ করে দিতে পারে। এখন সুসম্পর্কের কারণে আমাদের খেলতে দিচ্ছে। তবে এই বিপদটা রয়েই গেছে।
দীর্ঘদিন ধরেই বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে সংস্কারের দাবি করে আসছে বাফুফে। বিশেষ করে ড্রেসিংরুম, মাঠের আউটফিল্ড, গ্যালারি সংস্কার অতি জরুরি। কিন্তু বিভিন্ন কারণে সংস্কার পিছিয়েছে বারবার। ২০০৫ সালের আগ পর্যন্ত বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে ফুটবল ও ক্রিকেট ভাগাভাগি করে খেলা হলেও মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়াম ছিল পুরোই ফুটবলের দখলে। কিন্তু ক্রিকেট ও ফুটবল সমানতালে চালিয়ে যেতে পারছিল না বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম। সে কারণে মিরপুরে চলে যায় ক্রিকেট। বঙ্গবন্ধুতে স্থায়ী হয় ফুটবল।
এরপর ক্রিকেটের দুইটি ইভেন্ট হয় বঙ্গবন্ধুতে। একটি ২০১১ সালের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান, অন্যটি ২০১৪ সালের টি-২০ বিশ্বকাপের আগের কনসার্ট। এছাড়া ফুটবলের দখলেই বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম। ২০১১ সালে এ মাঠে খেলেছিলেন আর্জেন্টাইন সুপারস্টার লিওনেল মেসি। তার সঙ্গে এসেছিলেন আনহেল দি মারিয়া, সার্জিও আগুয়েরো, গনসালো হিগুয়েনরা। ২০০৬ সালে জিদান অংশ নিয়েছিলেন প্রীতি ম্যাচে। সেখানেই এখন আয়োজন হয় ফুটবরের সব খেলা।
ঢাকার বাইরে কিছু ম্যাচ হলেও সারা বছর বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম ব্যস্ত থাকে ম্যাচ আয়োজনে। উন্নত সংস্কারের পাশাপাশি এ স্টেডিয়ামের প্রয়োজন পর্যাপ্ত বিশ্রাম। নতুনভাবে দায়িত্ব নিয়েছেন কাজী সালাউদ্দিন। আগের দুই দফায় এই মাঠ আরও উন্নত করার স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন। দাবি জানিয়েছিলেন নতুন আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামের। শেষ আট বছরে যা করতে পারেননি এবার তা করে দেখানোর চ্যালেঞ্জ বাফুফে সভাপতির, আমরা একটি কমিটি নিয়ে যাবো প্রধানমন্ত্রীর কাছে। ফিফা কমপ্লায়েন্স একটা স্টেডিয়াম চাইবো। এটা নিয়ে ইতিমধ্যে কয়েক জায়গায় কথা বলেছি। অফিসিয়ালি আমরা শিগগিরই পদক্ষেপ নেবো।



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft