মঙ্গলবার, ১১ মে, ২০২১
দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
অভয়নগরে হৃদয় হত্যা মামলায় চারজনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট
কাগজ সংবাদ
Published : Wednesday, 18 November, 2020 at 9:32 PM
অভয়নগরে হৃদয় হত্যা মামলায় চারজনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিটযশোরের অভয়নগরের বুইকারা গ্রামের আবিদ হাসান হৃদয় হত্যা মামলায় চারজনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দিয়েছে পিবিআই। মামলার তদন্ত শেষে আদালতে এ চার্জশিট দিয়েছেন তদন্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক শেখ মোনায়েম হোসেন। অভিযুক্তরা হচ্ছেন, অভয়নগরের গুয়াখোলার ইউসুফ ভুইয়ার ছেলে সাজু ভুইয়া, মিজানুর রহমানের ছেলে রাকিবুল হাসান রাব্বি, ইদ্রিস হাওলাদারের ছেলে শাকিল হাওলাদার ও বুইকারা ড্রাইভারপাড়ার শুকুর আলীর ছেলে কাজল ইসলাম মিলন। চার্জশিটে অভিযুক্ত সকল আসামি জামিনে আছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।  
চার্জশিটে উল্লেখ করা হয়েছে, হৃদয়ের পিতা মারা গেছেন। তার মা  ভারতে বসবাস করেন। মিন্টু হাওলাদার হত্যা মামলায় জামিনে মুক্তি পেয়ে একাই বাড়িতে বসবাস করতেন। এরমধ্যে হৃদয় মাদকাসক্ত হয়ে বেপরোয়া জীবনযাপন শুরু করে। আসামিরা তার সহপাঠী। ওই বছরের ৫ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় হৃদয়সহ আসামিরা নওয়াপাড়ার পুরাতন কাপড়ের মার্কেট থেকে এক গাইট কাপড় চুরি করে। কাপড় বিক্রির টাকা ভাগাভাগি করা নিয়ে তাদের মধ্যে গোলযোগ হয়। একপর্যায়ে আসামিরা হৃদয়ের গলার মাফলার দু’জন টেনে ধরে ফাঁস লাগিয়ে হত্যার পর নদীতে লাশ ফেলে দেয়। ২০১৮ সালের ৮ ডিসেম্বর দুপুর ভাঙ্গাগেট এলাকা থেকে লাশ উদ্ধার হয়। এ ঘটনায় নিহত হৃদয়ের ফুপাতো বোন বুইকারা গ্রামের রুহুল আমিন পাটোয়ারীর স্ত্রী ইবনুর সুলতানা বাদী হয়ে অপরিচিত ব্যক্তিদের আসামি করে অভয়নগর থানায় হত্যা মামলা করেন। মামলাটি প্রথমে থানা পুলিশ পরে পিবিআই তদন্তের দায়িত্ব পায়। এ মামলার তদন্তকালে আটক আসামিদের দেয়া স্বীকারোক্তি ও সাক্ষীদের বক্তব্যে হত্যার সাথে জড়িত থাকায় ওই চারজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে এ চার্জশিট জমা দিয়েছেন তদন্ত কর্মকর্তা।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft