শিরোনাম: নৌকা-আনারস প্রতীকের কার্যালয় ভাংচুরের পর উত্তেজনা       দেশপ্রেম ও মানবসেবার আহ্বানে পুনশ্চের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন        যশোর পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র রেন্টুকেই মনোনয়ন দেয়ার প্রস্তাব        শনিবার যশোরসহ ১০ জেলায় অ্যান্টিজেন পরীক্ষা শুরু       সবার উপরে মানুষ শ্রেষ্ঠ...       এ সব দ্যাকপে কিডা!       বিশ্বজুড়ে মৃত্যু ছাড়াল ১৫ লাখ       ভেজাল মদে ১৭ মৃত্যু ও তিন মামলার চার্জশিট প্রস্তুত       ঢাকায় খাস জমি দেয়ার নামে ৮ লাখ টাকা হাতিয়েছে প্রতারক       তিনটিতে গুরুত্ব আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর      
চিকিৎসা করাতে এখনই কোলকাতায় না!
কাগজ ডেক্স :
Published : Wednesday, 14 October, 2020 at 10:04 PM
চিকিৎসা করাতে এখনই কোলকাতায় না!করোনাভাইরাসের ব্যাপক সংক্রমণ ও মহামারির ফলে একঘরে হয়ে পড়েছিল পুরো বিশ্ব। এখনো সব কিছু স্বাভাবিক হয়নি। এরই মধ্যে টানা সাতমাস পর চিকিৎসা, সাংবাদিক, কূটনৈতিকসহ বেশ কয়েকটি সেক্টরে ভিসাসেবা চালুর ঘোষণা দিয়েছে প্রতিবেশী দেশ ভারত। ফলে অনেকে প্রস্তুতি নিচ্ছেন ভারতে যাওয়ার জন্য। বিশেষ করে মেডিকেল ভিসা নিয়ে চিকিৎসা করাতে।
কিন্তু এখনই কী সে সুবিধা পাওয়া যাবে? কোলকাতার হাসপাতালগুলোর কর্তারা বলছেন, চলতি বছরের অক্টোবর, নভেম্বর ও ডিসেম্বরে বাংলাদেশিদের চিকিৎসা নিতে না আসাই ভালো হবে। এর পেছনে যৌক্তিক কিছু কারণও দেখিয়েছে স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠানগুলো।
কোলকাতার বেসরকারি হাসপাতলগুলোর কর্তৃপক্ষদের মতে, বর্তমানে সব হাসপাতালে খালি শয্যার সংখ্যা একবারে নেই বললেই চলে। এছাড়া আসন্ন দুর্গাপূজার পর রাজ্যে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ সুনামির আকার ধারণ করতে পারে। উদাহরণ হিসেবে তারা ‘ওনাম’ উৎসবকেই তুলে ধরছেন ।
গেল সেপ্টেম্বরে কেরালায় ছিল সেখানকার প্রধান উৎসব ‘ওনাম’। এক উৎসবের কারণে গোটা রাজ্যের ওপর আছড়ে পড়েছে করোনার সুনামি। গত ৩০ জানুয়ারি কেরালায় করোনা আক্রান্ত প্রথম রোগী শনাক্ত হয়। যা ভারতের পরিসংখ্যানে ছিল প্রথম। তবে আবার কেরালাই করোনা নির্মূল হিসেবে গোটা ভারতবর্ষে উদাহরণ সৃষ্টি করে। কিন্তু ওনাম উৎসবের মধ্য দিয়ে পুণরায় মহামারি ফিরেছে রাজ্যটিতে।
পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যেও এটা হতে পারে। আশংকা করা হচ্ছে ভয়ঙ্কর আকার নিতে পারে করোনা সংক্রমণ। আসন্ন দূর্গা পূজার আগে শপিংয়ের ভিড় দেখেই তার আন্দাজ করা যাচ্ছে। নিত্যদিন নিউমার্কেট, গড়িয়াহাটসহ বিভিন্ন শপিং কমপ্লেক্সে ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড় হচ্ছে। এই রেশ বা ভিড় পূজার সময় বহাল থাকলে পরিস্থিতি আরও ভয়ঙ্কর হতে পারে। যদিও পরিস্থিতি সামাল দিতে ইতিমধ্যে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি দিয়েছে রাজ্যের চিকিৎসকমহল। ফলে এ মহূর্তে বাংলাদেশি রোগীদের কোলকাতায় না আসা ভালো মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।
ভারতে করোনার সংক্রমণ বিপদজনক পর্যায়ে থাকলেও লকডাউন নেই এখন। অনেকটা স্বাভাবিকভাবে চলছে জনজীবন। এতে পিছিয়ে নেই কলকাতাও। পাশাপাশি বাংলাদেশিদের জন্যে চালু হয়েছে চিকিৎসা ভিসা। ধীরে ধীরে কলকাতার হাসপাতালগুলোতে বাংলাদেশিদের আনাগোনা শুরু হয়েছে।
ট্যুরিজম বিভাগের তথ্য মতে, ভারতে আসা প্রতি পাঁচজন বিদেশির মধ্যে একজন বাংলাদেশি। প্রতিবছর গড়ে কম করে হলেও চার লাখ বাংলাদেশি ভারতে যান চিকিৎসার জন্যে।
ভারতের ইমিগ্রেশন তথ্য অনুযায়ী, ২০১৮ সাল পর্যন্ত ১০ কোটি ৫৫ লাখ নয়শ’ ২৯ বিদেশি এসেছেন ভারতে। এরমধ্যে দু’ কোটি ২৫ লাখ ছয়শ’ ৭৫ জন ছিলেন বাংলাদেশি।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft