দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল
শিরোনাম: চিরবিদায় নিলেন চিত্রনায়ক ওয়াসিম       মানবতার ফেরিওয়ালাদের দেখা নেই       এক সপ্তায় চালু হচ্ছে যমেক হাসপাতালের আইসিইউ       হাজার হাজার মানুষের লাশ কাটা গোবিন্দও লাশ হলেন       ডাক্তার সেজে ওটির সামনে রোগী দেখেন সহকারী ফিরোজ       যশোরে সাড়ে সাত হাজারের বেশি পণ্য হোম ডেলিভারি দেবে চাল ডাল ডটকম       খাজুরায় জুয়াড়ীদের ধরতে পুলিশি তৎপরতা, জুয়ার কোটে অভিযান       মেডিকেলে ভর্তিতে যশোরে ভ্যানচালকের মেয়ের অভূতপূর্ব সাফল্য       হেফাজতে ইসলাম জামায়াতে ইসলামীর বি টিম : হানিফ       প্রেমিকার আপত্তিকর ছবি ইন্টারনেটে দেয়ায় যুবক গ্রেফতার      
যশোরের রিকশাচালকদের মানবিক আকুতি
কাগজ সংবাদ
Published : Tuesday, 6 April, 2021 at 9:02 PM, Update: 06.04.2021 9:37:18 PM, Count : 270
যশোরের রিকশাচালকদের মানবিক আকুতিযশোর সদর উপজেলার রামনগর ইউনিয়নের কামালপুর গ্রামের বাসিন্দা সাইফুল ইসলাম। পেশায় রিকশাচালক। লকডাউনের দ্বিতীয় দিন মঙ্গলবার সকাল ১১ টায়  গ্যারেজ থেকে ভাড়ায়চালিত রিকশা নিয়ে বের হন শহরের পথে। রাস্তায় যাত্রী না থাকায় পকেটশূন্য অবস্থায় ঘুরতে থাকেন শহরের এক গলি থেকে অন্য গলিতে। টানা সাত ঘণ্টা প্যাডেল ঘুরিয়ে আয় করেন মাত্র একশ’৪০ টাকা। পুলিশের চোখ ফাঁকি দিতে এক কিলোমিটার পথ আড়াই কিলোমিটার ঘুরে যাত্রীদের পৌঁছে দেন গন্তব্যস্থলে।
সন্ধ্যায় সিভিলকোর্ট মোড়ে দেখা হয় সাইফুল ইসলামের সাথে। তিনি রিকশার নীচ থেকে প্যাকেট বের করে কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, সারাদিন আয়ের টাকা দিয়ে বাজার করতে হবে। রিকশা ভাড়া দিতে হবে দুশ’ টাকা। দুপুরে কয়েক মুঠো ভাতের সাথে ছয় গ্লাস পানি খেয়ে কোনোরকম পেট ভরেন। সারাদিন হাত খরচ করেন ৩০ টাকা। চাল, বাজার ও রিকশা ভাড়ার জন্য তার কাছে ছিল মাত্র  একশ’ ১০ টাকা। এ টাকা দিয়ে স্ত্রী, ছয় বছরের ছেলে এবং আট ও দু’ বছরের দু’ মেয়ের মুখে অন্ন দিবেন, নাকি রিকশা ভাড়া দিবেন-প্রশ্ন করেন তিনি। বলেন, পেটে ভাত না থাকলে কোনো লকডাউনে কাজ হবে না। আগে ভাত, তারপর লকডাউন। কোনো সহায়তা না দিয়ে সরকার কীভাবে এমন সিদ্ধান্ত নেয়? বলেন সাইফুল। বলেন, ‘স্ত্রী ও সন্তানরা অপেক্ষায় আছে কখন বাজার নিয়ে বাড়ি ফিরবো। রাতে বাজার করতে না পারলে শুধু ভাত খেয়েই কাটাতে হবে তাদের।’
খোকন মোল্লা নামে আরেক রিকশাচালক বলেন, ‘দিন আনি দিন খাই। একদিন রিকশা চালাতে না পারলে স্ত্রী-সন্তানদের নিয়ে না খেয়ে থাকতে হয় তাদের। এছাড়া, রিকশা ভাড়া ও ঋণের বোঝাতো আছেই।’ সবমিলে মানবেতর জীবনযাপন করছেন যশোরের শ’শ’ রিকশাচালক। লকডাউনের আগে দিনে চার থেকে পাঁচশ’ টাকা আয় করে ভালোই চলতো এসব রিকশাচালকের সংসার। কিন্তু লকডাউনের থাবা কেড়ে নিয়েছে তাদের সংসারের সেইসব সুখ। লকডাউনে খাদ্য সহায়তা ও নির্বিঘ্নে রিকশা চালানোর ব্যবস্থা করতে জেলা প্রশাসনের কাছে অনুরোধ জানিয়েছেন শ’শ’ চালক।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft