ক্রীড়া সংবাদ
শিরোনাম: যশোরে কোয়ারেন্টাইনে নারীর মৃত্যু       বৃহস্পতিবার জাতির উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ       হেফাজত তাণ্ডব: দায় স্বীকার করলেন হারুন       তিন ক্লাবের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রক্রিয়া শুরু       শুক্রবার ঈদ       রাস্ট্রিক সোসাইটির উদ্যোগে উপহার সামগ্রী বিতরণ       মণিরামপুরে ঈদ বস্ত্র ও নগদ অর্থ বিতরণ        তাড়াহুড়োয় ফেরিতে প্রাণ গেল ৬ জনের       কোয়ারেন্টাইনে ঈদ করবেন আড়াই সহস্রাধিক মানুষ       আজ চাঁদ উঠলে কাল ঈদ       
বার্সার শিরোপা উৎসব
ক্রীড়া ডেস্ক:
Published : Sunday, 18 April, 2021 at 3:19 PM, Count : 110
বার্সার শিরোপা উৎসবমাত্র বার মিনিটের মধ্যে প্রতিপক্ষের জালে চারবার বল পাঠাল বার্সেলোনা। আথলেতিক বিলবাওকে উড়িয়ে কোপা দেল রের শিরোপা জিতল রেকর্ড চ্যাম্পিয়নরা। সেভিয়ার লা কার্তুসা স্টেডিয়ামে শনিবার রাতে ফাইনালে ৪-০ গোলে জিতেছে রোনাল্ড কুমানের দল। জোড়া গোল করেন লিওনেল মেসি, একটি করে অঁতোয়ান গ্রিজমান ও ফ্রেংকি ডি ইয়ং।
কুমানের কোচিংয়ে এটিই কাতালান দলটির প্রথম শিরোপা। স্পেনের দ্বিতীয় সেরা প্রতিযোগিতায় এই নিয়ে রেকর্ড ৩১তম শিরোপা জয় বার্সেলোনার।
লা লিগায় টানা ১৯ ম্যাচ অপরাজিত থাকার পর গত শনিবার রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে ২-১ গোলে হেরে যায় বার্সেলোনা। এক সপ্তাহ বাদে এই জয়ের মধ্য দিয়ে শিরোপা খরাও কাটাল তারা। দীর্ঘ এক যুগের মধ্যে গতবার শিরোপাশূন্য মৌসুম কাটিয়েছিল দলটি।
ঘুরে দাঁড়াতে মরিয়া বার্সেলোনা শুরু থেকেই চাপ তৈরি করে। মেসির নৈপুণ্যে প্রথম ১০ মিনিটে দারুণ দুটি সুযোগও পায় তারা। কিন্তু স্কোরলাইনে পরিবর্তন আসেনি।
পঞ্চম মিনিটে সতীর্থের উঁচু করে বাড়ানো বল অফসাইডের ফাঁদ ভেঙে ডিবক্সে ধরে ডি ইয়ংকে ব্যাকপাস করেন মেসি। কিন্তু ডাচ এই মিডফিল্ডারের কোনাকুনি শট বাধা পায় পোস্টে। পাঁচ মিনিট পর অধিনায়কের রক্ষণচেরা পাস ডি বক্সে ফাঁকায় পেয়েও শট না নিয়ে ব্যাকপাস করেন গ্রিজমান।
প্রথম ২৫ মিনিটে ৮৫ শতাংশের বেশি সময় বল দখলে রেখে গোলের উদ্দেশে ছয়টি শট নেয় বার্সেলোনা, যার একটি লক্ষ্যে। প্রথমার্ধের বাকি সময়েও বল দখলে একচেটিয়া আধিপত্য করে তারা, কিন্তু ছিল না শুরুর ধার। পরের ২০ মিনিটে আর কোনো শটই নিতে পারেনি তারা!
বিরতির আগে অধিকাংশ সময় রক্ষণ সামলাতে ব্যস্ত বিলবাও দুয়েকবার পাল্টা আক্রমণে গেলেও কখনোই তেমন সম্ভাবনা জাগাতে পারেনি।
দ্বিতীয়ার্ধের তৃতীয় মিনিটে সহজ সুযোগ নষ্ট করেন গ্রিজমান। মেসির দারুণ পাস ডিবক্সে পেয়ে গোলমুখে বাড়ান সের্জিনো দেস্ত। ছুটে যান গ্রিজমান, সামনে একমাত্র বাধা গোলরক্ষক। তবে ফরাসি ফরোয়ার্ডের স্লাইড পা দিয়ে রুখে দেন উনাই সিমোন।
খানিক পর আরও দুটি দারুণ সেভ করেন এই স্প্যানিশ গোলরক্ষক। ৫২তম মিনিটে পেদ্রির নিচু শট ঝাঁপিয়ে ঠেকানোর পর কাছ থেকে সের্হিও বুসকেতসের শট পা দিয়ে ঠেকান সিমোন।
চাপ ধরে রাখার ফল ৬০ মিনিট পায় বার্সেলোনা। ডান দিক থেকে ডি ইয়ংয়ের দারুণ ক্রসে ছয় গজ দূর থেকে ঠিকানা খুঁজে নেন গত সপ্তাহের ক্লাসিকোয় শুরুর একাদশে সুযোগ না পাওয়া গ্রিজমান। পরের ১২ মিনিটের মধ্যে আরও তিন গোল হজম করে ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় তারা।
৬৩ মিনিটে জর্দি আলবার ক্রসে ছয় গজ দূর থেকে নিচু হয়ে হেডে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন ডি ইয়ং। পরের দুই গোল সময়ের সেরা ফুটবলার মেসির। ৬৮ মিনিটে মাঝমাঠ থেকে ছোটার পথে সতীর্থের সঙ্গে বল দেওয়া নেওয়া করে ডি বক্সে ঢুকে ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে কোনাকুনি শটে নিজের প্রথম গোলটি করেন আর্জেন্টাইন তারকা। চার মিনিট পর আলবার বাঁ দিক থেকে বাড়ানো পাস ডিবক্সে পেয়ে প্রথম ছোঁয়ায় নিচু শটে স্কোরলাইন ৪-০ করেন তিনি।





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft