আক্কেল চাচার চিঠি (আঞ্চলিক ভাষায় লেখা)
শিরোনাম: স্বাস্থ্যবিধি মানছেন না যশোরের বিভিন্ন ব্যাংকের গ্রাহকরা       ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে নজর দিতে হবে নাস্তায়        যশোরের দু’ নির্বাচন কর্মকর্তাকে প্রত্যাহারের দাবিতে সাংবাদিকদের স্মারকলিপি প্রদান       সাতটি বোমাসহ একজন আটক       রাজারহাটে এমপি নাবিলের পক্ষে কম্বল বিতরণ       মাকে চেতনানাশক খাইয়ে সোনা ও টাকা চুরি        বান্ধবীকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় কিশোরকে ছুরিকাঘাত        চট্টগ্রামকে হারাল খুলনা       প্রথম জয় সূর্য সংঘের       বিএনপি-জামায়াত দেশের উন্নয়নে ভীত : তথ্যমন্ত্রী      
চুতায় আছে, বাস্তবায়ন করবে কিডা!
Published : Sunday, 5 December, 2021 at 9:34 PM, Count : 144
ছোট ছোট ছিলে পিলে একন পুকোর কি চেনেনা। ট্যাপের পানিতি চড়োই পাখির ল্যাজ ভিজানোর মত চ্যান করে। আমাগের সুমায় পুকোরি ডুবোয়ো চোখ রাঙা না হলি বাড়ি ফিরতাম না। একনকের ছিলেপিলে বেশীর ভাগই সাতারই জানে না। জানবে কিরাম কইরে তাইগেরতো সাতরানোরই জাগা নেই। সাতার পারে না বিলে বেড়াতে যায়ে পানিতি পড়ে ডুবে মরে যাচ্চে। সিডা সাগরে হোক,, নদীতি হোক বিল বাওড়ে হোক, কিম্বা  পৌরসভার পুকোরি হোক।
পিরায় সুমায় খবর আইসতেচে বন্ধুগের সাতে আমোদ কইরে পানিতি উইলে লাশ হইয়ে ফিরতেচে ছিলেপিলে। আবার খরার সময় সব জাগায় খাওয়ার পানির জন্যি কারবালার মতো হাহাকার পড়ে যায়। টিউকলে পানি চাপতি যায়ে ড্যানা ব্যাতা হয়ে গেলিও এক গেলেস পানি ওটে না। সেকেনে পুকোর খুচা যিরাম সিরাম উল্টে আরো পুকোর বুজোনোর মচ্ছব চইলতেচে। দিন দিন যশোরের পুকোরগুলো এক এক করে বুজোয় ফ্যালছে। শুনিছি কাজডা বেআইনী। পুকোর যাতে কেউ বুজোয়  ফেলতি না পারে সে জন্যি সরকার আইন কইরেছে।  সেই আইনি পস্ট করে কওয়া আছে পুকোর কারো ব্যক্তি মালিকানার হলিও বুজোয় দিয়ার কোনো ক্ষ্যামতা সেই মালিকেরও  নেই। অথচ কিডা শোনে কার কতা। সবার চোকির সুমকি দিয়ে যশোর টাওনের হেডপোস্ট অফিসের সুমকির পুকোর, নিরালা সিনেমা হলের পাশের পুকোর, বেজপাড়ার শ্রীধর পুকোর, আরবপুরের বড় পুকোর, দেশবন্ধু চিত্তরঞ্জন রাস্তার ইসমাইল ডাক্তারের বাড়ীর পাশের পুকোর, ইসলামী মায়েগের ইশকুলির পুকোর, পুরোনো কসবা আবু তালেবের পুকোর, ডা. মোজাম্মেলের সায়েবের পুকোর, নিরিবিলি পুকোর, মুন্সী বাড়ির পুকোর, আয়নাল খাঁর পুকোর, জব্বার বিহারীর পুকুর, গোহাটা পুকোর, ষষ্ঠিতলাপাড়ায় ফায়ার সার্ভিস অপিসের সুমকির পুকোর, খালধার রাস্তার পুকোর আর কত কব, সব চুয়া হইয়ে গেলো। কতি কতি গাল মুক খাইল লাগে যাবেনে তবু পুকোরির নাম শেস হবেননা। এতো শহরের পারের পুকুরির কতা কলাম। শহরিরি বাইরির অবস্থা আরো করুণ। পুলাট ফিলাট বানানোর উসলোতো সব বুজোয় চুয়া কইরে ফেলতেচে।
স¹লির চোকির সুমকি দিনি দুপারে এই সব হচ্চে অতস্ত এই নিয়ে কারো কোন উইচাই নেই। ফ্যারাডা কি! এই সব দেকার কি কেউ নেই। নাকি শুধু আইন কইরেই জ্বালা জুড়োয় গেলো, সিডা বাস্তবায়ন হচ্চে কিনা সিডা দেকার দরকার নেই? আলাম কনে, মলাম যে !
ইতি-
অভাগা আক্কেল চাচা
০১৭২৮৮৭১০০৩




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft