সম্পাদকীয়
শিরোনাম: যশোরে অধিকাংশ ইজিবাইক ও রিকসা চুরিতে রবিউল সিন্ডিকেট        যশোরে বর্ণাঢ্য আয়োজনে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপিত       নাটোরে সড়ক দুর্ঘটনায় যশোরের ট্রাক চালক নিহত        যশোরে হাসপাতালে ভর্তি স্বামীকে বিষ প্রয়োগে হত্যার চেষ্টা, স্ত্রী আটক       স্বপ্নের পদ্মা সেতুর টোল চূড়ান্ত       সম্রাটকে জামিন দেয়ায় ক্ষুব্ধ হাইকোর্ট       ক্ষমতা কমলো পরিকল্পনামন্ত্রীর       মানবতাবিরোধী অপরাধ মামলায় তিন জনের রায় বৃহস্পতিবার       পিকে ও সহযোগীদের আরো ১৪ দিন রিমান্ডে চায় ইডি       লামায় ভ্রাতৃঘাতি ষড়যন্ত্রের এক নির্মম কাহিনী      
টিকা নেওয়া পরও ওমিক্রন!
Published : Friday, 21 January, 2022 at 10:01 PM, Count : 233
করোনা মহামারী শুরুর পর থেকে পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে করোনা টিকাকে। অনেকেই নিয়ম মেনে টিকা নিচ্ছেন। দুই ডোজ টিকার পাশাপাশি বুস্টার ডোজও নিয়েছেন অনেকে। কিন্তু করোনার ওমিক্রন ধরন যেন বদলে দিয়েছে সকল সমীকরণ। টিকার দুই ডোজ নোওয়ার পরেও ওমিক্রনে আক্রান্ত হচ্ছে অনেকে। টিকা নেওয়ার পরও এতো সংখ্যক মানুষ কেন করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন তার কারণ খুঁজতে এক যৌথ গবেষণা চালিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয় এবং ম্যাসাচুসেট্স ইন্সটিটিউট অব টেকনোলজি (এমআইটি)। গবেষণায় উঠে এসেছে কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য। হার্ভার্ড এবং এমআইটি'র বরাতে হিন্দুস্থান টাইমস এক প্রতিবেদনে জানায়, নতুন এই গবেষণা তথ্যগুলো করোনা সম্পর্কে মানুষকে আরও সঠিক তথ্য দেবে। এর ফলে আরও সহজে করোনার ওমিক্রন ধরন মোকাবেলা করা সম্ভব হবে।
গবেষণায় জানা গেছে, করোনা টিকার দুই ডোজ নেওয়ার পরেও প্রায় ২০ শতাংশ মানুষ করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করার মতো পর্যাপ্ত পরিমাণে রোগ প্রতিরোধ শক্তি পান না। আর যারা টিকার কোনো ডোজই নেননি, তারা সবচেয়ে বড় ঝুঁকিতে রয়েছেন। কে বা কারা ওমিক্রনে আক্রান্ত হবে অনেকক্ষেত্রে তার পুরোটাই নির্ভর করছে ওই ব্যক্তির শরীরের টি-সেলের ওপর। টি-সেল হলো মানুষের কোষের রোগপ্রতিরোধ ব্যবস্থা। কারো শরীরের বিশেষ ধরনের টি-সেল ওমিক্রনকে আটকাতে পারে। আবার কারো কারো ক্ষেত্রে ওমিক্রনের স্পাইক প্রোটিনকে আটকাতে পারে না কোষ। ফলে কারও ওমিক্রন হয়, কারও হয় না। শরীরের টি-সেল কখন ওমিক্রনকে ঠেকাতে পারবে, তার পুরোটাই পূর্বনির্ধারিত। অর্থাৎ সেটি নির্ভর করছে ওই ব্যক্তির জিনের উপর। কারো কারো জিনের গড়নের মধ্যেই ওই টি-সেলের সূত্র লুকিয়ে আছে, যা ওমিক্রনের স্পাইক প্রোটিনকে ভেঙে দিতে পারে। এছাড়া টিকার মাধ্যমে যে টি-সেল তৈরি হচ্ছে, তা অনেকে ক্ষেত্রেই ওমিক্রনকে ঠেকাতে পারছে না। তাই ইতিমধ্যেই ওমিক্রন বা করোনার পরের ধরনগুলোর সঙ্গে লড়াই করার জন্য নতুন টিকা বা বুস্টার ডোজ গুরুত্বপূর্ণ।
তাহলে কি করোনার টিকাতে আসলে কোনো কাজ হচ্ছে না? এমন প্রশ্নের উত্তরে বিজ্ঞানীরা জানান, টিকা না নিলে করোনার যেকোনো সংক্রমণই মারাত্মক রূপ নিতে পারে। তাই, করোনা ঠেকাতে আপাতত টিকার বিকল্প নেই। পাশাপাশি মাস্ক ও সামাজিক দূরত্বই মানুষকে করোনা থেকে সবচেয়ে বেশি নিরাপদ রাখবে।





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft