স্বাস্থ্যকথা
শিরোনাম: দ্রুত ওজন কমাতে দৌড়াবেন নাকি সাইকেল চালাবেন?       কালীগঞ্জে আলমসাধুর ধাক্কায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত       উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে যাচ্ছেন কেসিসি মেয়র       খানসামা উপজেলায় উপ-নির্বাচনে ৪ প্রার্থীর মনোনয়নই বৈধ       নওগাঁয় এ বছর দেড় হাজার কোটি টাকার আম বাণিজ্যের সম্ভাবনা       সেন্ট মার্টিন থেকে মালয়েশিয়াগামী ৩৩ রোহিঙ্গা উদ্ধার       রাস্তা পেল নওগাঁর বিল পাড়ের মানুষ       টেকনাফে আইসসহ এক রোহিঙ্গা আটক       ১ হাজার টাকাতেও মিলছে না ৪০০ টাকার শ্রমিক       ভয়াবহ বৈশ্বিক খাদ্যসংকটের আশঙ্কা জাতিসংঘের       
যে খাবারে বেশি ক্ষতি হয় শিশুর মস্তিষ্কে
কাগজ ডেস্ক
Published : Sunday, 23 January, 2022 at 8:55 PM, Count : 319
যে খাবারে বেশি ক্ষতি হয় শিশুর মস্তিষ্কেশিশুর শারীরিক ও মানসিক বিকাশের জন্য কোন খাবারগুলো উপকারী বা অপকারী, তা যদি জানা না থাকে, তবে বিষয়টা কঠিন হয়ে দাঁড়ায়। কারণ, সন্তানের জন্য কোন খাবারটা ভালো, তা খুঁজে বের করাটা সহজ কাজ নয়।   
বিজ্ঞান সাময়িকী দ্য ল্যানসেটে ২০২০ সালে প্রকাশিত ‘চাইল্ড অ্যান্ড অ্যাডোলেসেন্ট হেলথ’ শীর্ষক এক প্রতিবেদনে বলা হয়, শিশুর মস্তিষ্কের জন্য সবচাইতে ধ্বংসাত্মক হল ‘জাঙ্ক ফুড’। ওই প্রতিবেদন তৈরি করেন কানাডার ওন্টারিওর ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটি অব লন্ডনের গবেষকরা। এজন্য তারা ১০০টিরও বেশি গবেষণা প্রতিবেদন পর্যালোচনা করেন। উদ্দেশ্য একটাই, শিশু ও বয়ঃসন্ধিকালে অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস মস্তিষ্কের উপর কী প্রভাব ফেলে তার ধারণা পাওয়া। সেই প্রতিবেদনের ভিত্তিতে শিশুর খাদ্যাভ্যাসের গুরুত্বপূর্ণ কিছু দিক তুলে ধরা হয় ‘ইট দিস’ ওয়েবসাইটে।  
প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শৈশব ও বয়ঃসন্ধিকালে প্রচুর ‘জাঙ্ক ফুড’ খাওয়া হয়। এই খাবারগুলো থাকে ক্যালরিতে ঠাসা, যা শিশুদের মস্তিষ্কের বিকাশের পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায়। গবেষকরা বলছেন, এই ‘জাঙ্ক ফুড’ মস্তিষ্কের ‘প্রি-ফ্রন্টাল করটেক্স’য়ের ক্ষতি করে। মস্তিষ্কের এই অংশ মানুষের স্মৃতিশক্তি, মনযোগ ও আবেগ নিয়ন্ত্রণ করে। মজার ব্যাপার হলো, ‘জাঙ্ক ফুড’য়ের ক্ষতিকর প্রভাবের পরিণামে মানুষ তার খাদ্যাভ্যাসের উপর নিয়ন্ত্রণ হারায়।
যেহেতু ‘জাঙ্ক ফুড’ খাওয়ার কারণে মানুষ তার খাদ্যাভ্যাসের উপর নিয়ন্ত্রণ হারায়, তাই যতই এই খাবারগুলো খাবেন, ততই সেগুলো আরও খেতে ইচ্ছা হবে। যার ফল হিসেবে পরবর্তী বয়সে দেখা যায় ‘অবেসিটি’ বা স্থূলতা।
‘সোশাল সায়কায়াট্রি অ্যান্ড সায়কায়াট্রিক এপিডেমিওলজি’য়ের আরেক গবেষণায় দেখা যায়, বয়সন্ধিকালে অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস পরবর্তী সময়ে বয়ে আনে হতাশা।
শিশুর সুস্থ শারীরিক ও মানসিক বিকাশের জন্য চাই প্রোটিন, কার্বোহাইড্রেট, স্বাস্থ্যকর চর্বি, আয়রন, ভিটামিন এ, ভিটামিন সি, ভিটামিন ডি এবং বি ভিটামিন সমৃদ্ধ খাবার। এজন্য সবুজ শাকসবজি, টক দই, চর্বিওয়ালা মাছ, ডিম ইত্যাদি খেতে হবে।




« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft