শিরোনাম: করোনায় আক্রান্ত ছিলেন আলী যাকের       বগুড়ায় অস্ত্র-বিস্ফোরকসহ ২ জঙ্গি আটক       হোয়াইট হাউসে প্রথম ফিলিস্তিনি কর্মকর্তা নিয়োগ দিচ্ছেন বাইডেন       মারা গেলেন চেয়ারম্যান সালাম শিকদার       আর একবার নিয়ম ভাঙলে পাকিস্তানকে বাড়ি পাঠাবে নিউজিল্যান্ড       ছাত্র ইউনিয়নের কর্মী থেকে কিংবদন্তি অভিনেতা       আলী যাকেরের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক       নিউজিল্যান্ডকে ব্যবহার ঠিক করতে বললেন শোয়েব       সৌদিতে সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি নিহত       চলে গেলেন প্রবীণ অভিনেতা আলী যাকের      
রিফাত হত্যা মামলা
এবার সাজা ১১ কিশোরের
কাগজ ডেস্ক
Published : Tuesday, 27 October, 2020 at 9:08 PM
এবার সাজা ১১ কিশোরের বরগুনায় রিফাত শরীফকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে খুনের মামলায় ১১ কিশোর আসামিকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দিয়েছে আদালত।
মঙ্গলবার দুপুরে বরগুনা শিশু আদালতের বিচারক মো. হাফিজুর রহমান এ রায়ে ছয়জনকে ১০ বছর করে, চারজনকে পাঁচ বছর করে এবং একজনকে তিন বছর কারাদণ্ড দিয়েছেন। এছাড়া অভিযোগপত্রভুক্ত তিন কিশোর আসামিকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত। সাজাপ্রাপ্তরা অভিযোগপত্রে উল্লেখিত ১৪ আসামির মধ্যে এক থেকে চার, ছয়, সাত ও ১০ নম্বর আসামি ছিলেন।
এ রায় প্রদান উপলক্ষে মামলা সংশ্লিষ্টরা ছাড়া অন্যদের আদালতে প্রবেশে বিধিনিষেধ আরোপ করে এর প্রাঙ্গণে সীমানা চিহ্নিত করে দেওয়া হয়। রায় ঘোষণার পর আদালত থেকে বাইরে এসে আইনজীবী হুমায়ুন কবির সাংবাদিকদের রায়ের বিষয়টি জানান। সকালে কিশোর সংশোধন কেন্দ্র থেকে ছয়জন আসামিকে আদালতে উপস্থিত করা হয়েছে। এছাড়া জামিনে থাকা আট কিশোরও আদালতে হাজির হন বলে আইনজীবীরা জানান।
এর আগে গত ৩০ সেপ্টেম্বর এ হত্যাকাণ্ডে প্রাপ্তবয়স্ক আসামিদের রায়ে রিফাতের স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নিসহ ছয়জনের ফাঁসির আদেশ দেয় আদালত। এ ফাঁসির রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করেছেন মিন্নি। গত ৮ জানুয়ারি রিফাত হত্যা মামলার অপ্রাপ্তবয়স্ক ১৪ আসামির বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করে বরগুনার শিশু আদালত। ৭৪ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ এবং উভয়পক্ষের আইনজীবীদের যুক্তি-তর্ক উপস্থাপনের পর ৬৩ কার্যদিবসে এর বিচারিক কার্যক্রম শেষ হয়।  এরপর ১৪ অক্টোবর বরগুনা শিশু আদালত রায়ের দিন ধার্য করে।
গত বছরের ২৬ জুন বরগুনার কলেজ রোড এলাকায় দিনের বেলা কয়েকজন যুবক রিফাত শরীফের ওপর ধারালো অস্ত্র দিয়ে হামলা চালায়। রিফাত শরীফের সাথে তখন তার স্ত্রী মিন্নি ছিলেন। পরে তাকেও আসামি করা হয়। এ হত্যাকাণ্ডের দুই মাস ছয় দিন পর গত বছরের পহেলা সেপ্টেম্বর মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মো. হুমায়ূন কবির ২৪ জনকে আসামিকে প্রাপ্ত এবং অপ্রাপ্তবয়স্ক ভিত্তিতে দুই ভাগে বিভক্ত করে বরগুনার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে দুইটি পৃথক তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেন। তাতে ১০ জন প্রাপ্তবয়স্ক আসামি এবং ১৪ জন অপ্রাপ্তবয়স্ক উল্লেখ করা হয়।  






« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft