আক্কেল চাচার চিঠি (আঞ্চলিক ভাষায় লেখা)
শিরোনাম: আসলো আরও ৫০ লাখ টিকা       করোনাকালে ৩৩ শতাংশ ছেলেশিশু যৌন নির্যাতনের শিকার       বন্ধের পর স্কুলের প্রথম দিনে বরণ হলো তৃতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থীরা       বন্ধের পর স্কুলের প্রথম দিনে বরণ হলো তৃতীয় শ্রেণির শিক্ষার্থীরা       চাঁদা না পেয়ে বাড়ি নির্মাতাকে কুপিয়ে জখমের অভিযোগ       যশোরে চুরি মোটরসাইকেল গোপালগঞ্জে উদ্ধার       টিকা পাবে ১২ বছর বয়সীরাও       যশোর সংবাদপত্র হকার্স ইউনিয়ন প্রার্থীদের মধ্যে প্রতীক বরাদ্দ       আত্মকর্মসংস্থানের লক্ষ্যে হাতেকলমে শিখছেন ৪০ বেকার       স্বাস্থ্যসেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে গেছে : এমপি নাবিল      
গারমেনস কর্মীগের সাতে ইরাম ছাবাল খেলার মানেডা কি?
Published : Saturday, 31 July, 2021 at 10:02 PM, Count : 222
গারমেনস কর্মীগের সাতে ইরাম ছাবাল খেলার মানেডা কি?লোকমুকি শুনি গরীবির বউ স¹লির ভাবী। পেত্তম পেত্তম কতাডার মানে বুজদাম না। একদিন এক মুরুব্বী এর হেজেমানে কইরে দেলেন। ম্যালা দুক্কুভরা মন নিয়ে কতাডা আবার মনে পইড়ে গ্যালো।
এই করোনায় বড়লোকরা আল্লাবিল্লে করে যেন করোনা না হয়, আর গরীবগুরোরা আল্লাবিল্লে করে যেন লকডাউন না হয়। য্যানে যা কিছুই ঘটুক মত্তি মরণ সানাইদারের মতো গরীবলোকেরই। হালি কইরে ফেসবুকি কিচু ছবি দেইকে জানের মদ্দি কাইন্দে দেলে।  শুনা যাচ্চে আজকেত্তে গারমেনস খুইলে যাচ্চে। গারমেনস মালিকরা গরীব কর্মীগের সাতে সব সুমায় সাপ লুডু খেলে। কাজ করায়ে সব বেতন দেয়না, বকেয়া বেতন ঝুলোয় থোয় যাতে ভুতির মতো খাটালিও চইলে না যায়। করোনায় সেই মুলো আবার ঝুলোয় দেয় এই কইয়ে কাজে গরহাজির থাকলি কাজেত্তে ছাটাই করা হবে। ছাটাই করা মানে মচ্চি মুলামে বকেয়া বেতন সব হজমি। বকেয়া বেতন আর কাজ বাচানোর জন্যি গারমেনস খুলা হচ্চে খবর পালি চোকশন্যি কইরে সব ছোটে। ভাঙ্গা ভাইংটো গাড়ি, পানির ডিরাম, কিম্বা মাইলির পর মাইল পায় হাইটে তারা পৌছোনের জান পরান দিয়ে চিস্টা করে। করোনার দুহায় দিয়ে সিডা নিয়ে ফেসবুকি সুড়সুড়ি দিয়ার লোকের অভাব হয় না। কিন্তুক তলায় হাত দিয়ে কেউ দেকেনা, কেন তারা ইরাম কইরে পতে ওলে। আমি মুক্কুসুক্কু মানুস তবু এই বুজডা আসেনা গারমেনস খাতটা কি স্বাদীন, মালিকরা বইসে যা কবে তাই হবে? এই নিয়ে সরকারের সাতে কোন কতাবাত্তার কইয়ে অনুমতি নিয়া লাগে না?
কঠোর লকডাউনি শুনিলাম পতে পক্কী উড়লিও ঘের খাবে। তারপরও চোক ছাপায় দিয়ে সব কিচুই মচ্চিমুলামে হচ্চে। কিন্তুক দূরির পতে গাড়ি চইলতেচে না। তালি যে সব কর্মীরা লকডাউন আর ঈদি  গাও গিরামে চইলে আইলো তালি তারা কি কইরে ফিরে যাবে? খুলবিই যকন তালি তাইগের নিয়ার জন্যি বিশেষ গাড়ি চালানো কি যাইতো না? কুরবানীর গরু ছাগলের জন্যিও গাড়ি চলার অনুমতি ছিলো। কিন্তুক এগের জন্যি নেই কেন? নাকি গরীবগুরোরা মানসির মদ্দি পড়েনা, শুদু সংখ্যার মদ্দি পড়ে?
ইবারই যে পেত্তম ঘটনাডা কিন্তুক তা না। এর আগেও ইরাম ঘটনা ঘটানো হইয়েচে। যাইগের এই সব দেকার কতা তাইগের কাচে বিনয় কইরেই জানতি চাই গারমেনস কর্মীগের সাতে ইরাম ছাবাল খেলার মানেডা কি?
ইতি-
অভাগা আক্কেল চাচা
০১৭২৮৮৭১০০৩





« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Design and Developed by i2soft